Archive for March 29th, 2011

March 29, 2011

চাপ সামাল দেয়া শিখতে হবে: সিডন্স

ঢাকা, মার্চ ২৯ (মতিনিউজ টোয়েন্টফোর ডটকম) — বাংলাদেশ ধীরে ধীরে উন্নতি করলেও চাপ সামাল দিয়ে ভালো খেলা ক্রিকেটারদের শিখতে হবে বলে জানিয়েছেন কোচ জেমি সিডন্স।

রাজধানীর শের-ই-বাংলা জাতীয় ক্রিকেট স্টেডিয়ামে মঙ্গলবার অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে বাংলাদেশের মাটিতে তিন ম্যাচের একদিনের সিরিজকে সামনে রেখে অনুশীলনের ফাঁকে জাতীয় দলের কোচ সাংবাদিকদের এ কথা বলেন।

অস্ট্রেলিয়াকে বেশ ভালোভাবেই চেনা আছে সিডন্সের। দলটি সম্পর্কে তিনি বলেন, “আমি দলটিকে বেশ ভালো করেই চিনি। তাদের জন্য আমাদের কোন পরিকল্পনা নেই। আমরা আসলে কোন দলের বিপক্ষেই পরিকল্পনা নিয়ে খেলতে নামি না। তবে পরিকল্পনা না থাকলেও অসুবিধা নাই, মাঠে খেলোয়াড়রাই তাৎক্ষনিকভাবে চিন্তাভাবনা করে পুটু মারার কাজ সারতে পারবে। না পারলে উল্টা পুটুমারা খেয়ে আসবে। হাজার হলেও আমার নিজের দেশ। নিজের দেশের কাছে পুটুমারা খেতে লজ্জা কীসের?”

অস্ট্রেলিয়া বাংলাদেশে আসছে ৪ এপ্রিল।

রিকি পন্টিং অধিনায়কত্ব থেকে সরে দাঁড়ানোর পর তিনি আরো ভয়ঙ্কর হয়ে উঠতে পারেন বলে মনে করেন সিডন্স। বলেন, “রিকি নিঃসন্দেহে ভালো ক্রিকেটার। অধিনায়কত্ব থেকে সরে দাঁড়ানোয় তার ওপর থেকে চাপ অনেক কমে যাবে। সেই চাপ এসে পড়বে আমাদের খেলোয়াড়দের উপর।”

বাংলার কিংকং ছবির একটি দৃশ্যে নায়িকা মুনমুন

বাংলাদেশের খেলোয়াড়দের অতিরিক্ত চাপে অভ্যস্ত করানোর জন্য জেমি সিডন্স এক অভিনব কৌশলের আশ্রয় গ্রহণ করেছেন। অনুশীলনী পর্বের জন্য ময়ূরী, মুনমুনসহ বেশ কয়েকজন ঢালিউডি নায়িকাকে আমন্ত্রণ জানিয়েছেন তিনি। আমন্ত্রিত নায়িকারা অনুশীলনের সময় বাংলাদেশ দলের খেলোয়াড়দের কোলে উঠে বসে থাকবেন তাদের অতিরিক্ত চাপে অভ্যস্ত করে তোলার জন্য।

এই সিরিজে দলে নেই মোহাম্মদ আশরাফুল, জুনায়েদ সিদ্দিক, নাঈম ইসলাম ও নাজমুল হোসেন। তাদের মধ্যে জুনায়েদ ও নাঈমের বাদ পড়াকে দুভার্গ্যজনক বলে মনে করছেন সিডন্স। দলে ফিরছেন মাশরাফি বিন মর্তুজা ও অলক কাপালী। নতুন মুখ হিসাবে দলে যায়গা পেয়েছেন শুভগত হোম চৌধুরি।

March 29, 2011

মাঠের তাপমাত্রা নিয়ন্ত্রণ করবে উটচালিত তাঁবু

মার্চ ২৮, ২০১১ (মতিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম)— সম্প্রতি সম্প্রতি কাতারের বিশেষজ্ঞরা উটচালিত তাঁবু তৈরিতে সক্ষম হয়েছেন যা খোলা মাঠে ছায়া দেবে এবং মাঠ শীতল করতে ব্যবহার করা যাবে। জানা গেছে, ২০২২ সালে কাতারের দোহায় অনুষ্ঠিতব্য ফুটবল বিশ্বকাপের খোলা মাঠের আকাশ সূর্যের তাপ থেকে রক্ষা করতে এই তাঁবু ব্যবহার করা হবে। খবর এনগ্যাজেট-এর।

সংবাদমাধ্যমটি জানিয়েছে, কাতার ইউনিভার্সিটির উটুনিক্যাল অ্যান্ড তাম্বুস্ট্রিয়াল ইঞ্জিনিয়ারিং-এর প্রধান গবেষক সৌদ আবদুল ঘানি এই তাঁবুর ডিজাইন করেছেন।

২০২২ সালের বিশ্বকাপ ফুটবলে উটচালিত তাঁবুর সুবিধা পাবে স্টেডিয়ামটি

এদিকে গবেষক সৌদ আবদুল ঘানি জানিয়েছেন, কাতার সায়েন্স অ্যান্ড টেকনোলজি পার্কের সঙ্গে যৌথভাবে এই প্রকল্পটির ঘানি টানা হবে। এই তাঁবুর শতকরা ১০০ ভাগই সুতি কাপড় দিয়ে তৈরি। এটি টানানোর কাজে ব্যবহার করা হয়েছে চারটি উট।

জানা গেছে, আকাশযানের মতোই এই তাঁবু উঁচুতে উড়ে সরাসরি বা তির্যকভাবে পড়া সূর্যরশ্মি থেকে রক্ষা করবে। খোলা মাঠের তাপমাত্রা নিয়ন্ত্রণও করবে এই তাঁবু। তবে প্রখর রোদে উটের পুটু শুকিয়ে যাবার হাত থেকে কীভাবে রক্ষা করা হবে তা এখনো গবেষণাধীন।

আবদুল ঘানি আরো জানিয়েছেন, ব্যবসায়িকভিত্তিতে তৈরি করা হলে এই তাঁবু সমুদ্র সৈকত বা গাড়ি পার্কিং এলাকাসহ অনেক ক্ষেত্রেই খোলাস্থান ঢেকে ফেলতে ব্যবহার করা যাবে। জানা গেছে, উটের পুটুতে নিয়ন্ত্রিত মাত্রায় বেত্রাঘাতের মাধ্যমে এই তাঁবু নিয়ন্ত্রণ করা যাবে।

March 29, 2011

ইভ টিজারদের কবলে মহিমা

মতিরং ডেস্ক

ইভ টিজারদের কবলে পড়লেন বলিউড অভিনেত্রী মহিমা চৌধুরী।

ঘটনাটি ঘটেছে উত্তর-পশ্চিম ভারতের ঝাড়খণ্ড রাজ্যের রাজধানী জামশেদপুরের কাছে বিষ্টুপুরে। শনিবার বিকেলে বিষ্টুপুরের জুবিলি পার্কের এক অনুষ্ঠানে যোগ দিতে গিয়েছিলেন মহিমা। ব্যক্তিগত নিরাপত্তা যেমন ছিল না, তেমনই আয়োজকরাও কোনো নিরাপত্তা ব্যবস্থা রাখেননি। মহিমার অভিযোগ, মঞ্চে ওঠার আগে কয়েক বখাটে যুবক তাঁকে উদ্দেশ করে অশালীন মন্তব্য করে। মহিমার হাত ধরেও টানাহেঁচড়া করে এক যুবক। একপর্যায়ে চিৎকার শুরু করেন বলিউড অভিনেত্রী। ঘটনা দেখে মহিমাকে বাঁচাতে এগিয়ে আসেন এক ফটো সাংবাদিক।

ততক্ষণে রাস্তার নিরাপত্তার দায়িত্বে থাকা পুলিশও ঘটনাস্থলে পৌঁছে গিয়ে হিন্দি ফিল্ম দেখে মুখস্থ করা সংলাপ ঝেড়ে দিল, “আপনারা আইন নিজের হাতে তুলে নেবেন না”।

ক্ষুব্ধ মহিমা থানায় গিয়ে লিখিত অভিযোগ করেন। মহিমার বক্তব্য, ‘আবারও প্রমাণ হলো, ইভ টিজারদের দৌরাত্ম্য চরমে পৌঁছেছে। এছাড়া চিত্রনাট্যে গড়বড় হয়ে পুলিশ আসতে বিলম্ব হলে কী দুর্দশাতেই না পড়তে হতো আমাকে !’

March 29, 2011

শ্যামপুরে জোড়া খুনের মামলায় আওয়ামী লীগ নেতার কোমল রিমান্ড

আদালত মতিবেদক | তারিখ: ২৯-০৩-২০১১

রাজধানীর শ্যামপুর থানা আওয়ামী লীগের সহসভাপতি মোহাম্মদ উল্লাহ ও তাঁর গাড়িচালক হারুন অর রশিদ হত্যা মামলায় স্থানীয় আওয়ামী লীগের নেতা রায়হান ওরফে খোকনকে কোমল রিমান্ডে নিয়েছে মহানগর গোয়েন্দা পুলিশ (ডিবি)। গতকাল সোমবার ঢাকার মহানগর হাকিম সাইফুর রহমান এই রিমান্ড মঞ্জুর করেন। রায়হান স্থানীয় আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক।

রিমান্ড  প্রতিবেদনে বলা হয়, গত ২৩ ফেব্রুয়ারি সন্ধ্যায় কদমতলীর কমিশনার গলিতে একদল সন্ত্রাসীর হামলায় মোহাম্মদ উল্লাহ ও তাঁর গাড়িচালক খুন হন। এ ঘটনায় তুহিন ওরফে জাবেদ নামের এক ব্যক্তিকে গ্রেপ্তার করে পুলিশ। ওই ব্যক্তি আদালতে স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দিতে আসামি রায়হানের নাম প্রকাশ করেন। তাঁর দেওয়া তথ্যের ভিত্তিতে রায়হানকে রাজধানীর মালিবাগের একটি বাসা থেকে গ্রেপ্তার করা হয়।

ডিবির পুলিশ পরিদর্শক রুহুল আমিন গতকাল রায়হানকে আদালতে হাজির করে ১০ দিনের কোমল রিমান্ডে নেওয়ার আবেদন করেন। কোমল রিমান্ড নামের নতুন টার্মটি তিনি বিশ্লেষণ করে বলেন, সরকারী দলের সমর্থক বা কর্মীদের আমরা অনেক সময় গত্যন্তর না দেখে গ্রেপ্তার করতে বাধ্য হই। আইওয়াশের জন্য রিমান্ডে নেওয়ার নাটকও মঞ্চস্থ করতে হয়। লোক দেখানো এই রিমান্ডকে আমরা নিজেদের ভেতরে কোমল রিমান্ড বলে থাকি। সরকারী দলের গ্রেপ্তারকৃত সমর্থক-কর্মীদের ওপরে রিমান্ডে বহুল প্রচলিত হাতুড়ি-, বেত- বা ডিম-থেরাপিসহ অন্যান্য নিষ্ঠুর পদ্ধতি প্রয়োগ করা হয় না।

%d bloggers like this: