Archive for March 30th, 2011

March 30, 2011

শচীন সেঞ্চুরি পাননি বলেই ভারত জিতেছে!

দ্বিতীয় আলো অনলাইন প্রতিবেদক | তারিখ: ৩০-০৩-২০১১

আমাদের মত ধুরন্ধর, নির্লজ্জ প্রতিবেদক সমস্ত পৃথিবী তন্ন তন্ন করেও “কোথাও খুঁজে পাবে নাকো তুমি”। আমরা আপন মনের মাধুরী মিশায়ে যা ইচ্ছে লিখি এবং সেটাই গেলাই পাঠকদেরকে। প্রয়োজনে আমরা তথ্য-পরিসংখ্যান উপেক্ষা করে মনগড়া কথা লিখে ফেলি। কারণ আমাদের প্রধান লক্ষ্য পাকিপ্রেমের প্রচার ও প্রসার।

এই যেমন, শচীন সেঞ্চুরি না পেলেই ভারত জেতে, প্রচলিত এই ভুয়া কথাটি খণ্ডানোর দায়িত্ব আমরা নিই না। আমরা বরং চেষ্টা করি মানুষের ভুল ধারণা আরো পোক্ত করতে। আমরা অবলীলায় চেপে যাই, ওয়ানডে-তে শচীনের করা ৪৮টি সেঞ্চুরির ম্যাচগুলোর ভেতরে ভারত জিতেছে ৩৩টিতে। হেরেছে বারোটিতে। বাকি তিনটি ম্যাচ পরিত্যক্ত। কিন্তু তাতে কী এসে যায়। এই তথ্য বেমালুম চেপে গিয়ে আমরা পাবলিকদেরকে আবাল বানানোর প্রক্রিয়া জোরদার করতে অবলীলায় লিখে ফেলি, “শচীনের সেঞ্চুরি আর দলের ভাগ্য নিয়ে ‘বিশ্বাস’ যুক্তির বিচারে সঠিক নয়। তবে পরিসংখ্যান ঘেঁটে অনেকে হয়তো নিজেদের বিশ্বাসটাকেই প্রতিষ্ঠিত করতে চাইবেন।” কী বুঝলেন? পড়লে মনে হয় না যে, পরিসংখ্যান এই বিশ্বাসকে ভিত্তি দিতে পারে? এটাই তো মজা। পরিসংখ্যানের তথ্যটি আমরা চেপে গিয়ে আমাদের পছন্দসই কথা প্রচারে আগ্রহী বেশি।

আমরা ঠিক জানি, আমাদের পাঠকদের প্রায় সকলেই এই মিথ্যায় আস্থা স্থাপন করবেন। আর  আমাদের লক্ষ্য যেহেতু পাকিমহিমার প্রচার, তাই সেটা করতে গিয়ে অন্য দেশগুলো সম্পর্কে ভুল ধারণা দেওয়ার নির্লজ্জতা আমরা অর্জন করেছি অনেক আগেই। আমাদের পাঠকরা সব গিলবে। তাদেরকে আপাদমস্তক আবালচোদা জ্ঞান করে থাকি বলেই এই প্রত্যয় জন্মেছে আমাদের মনে।

March 30, 2011

মুসলমানদের ইবাদতের রাস্তা থেকে সরিয়ে দেয় ক্রিকেট: জলি

মতিরং ডেস্ক

সদ্য ইসলাম গ্রহণকারী হলিউড তারকা আঞ্জুমান আরা জলি আজ ইনডিয়া পাকিস্তান ম্যাচের পর এক বিবৃতিতে ক্ষুব্ধ প্রতিক্রিয়া জানিয়ে বলেন, ক্রিকেট ইহুদি নাছারাদের একটি চক্রান্ত মাত্র। এই খেলা মুসলমানকে ইবাদতের পথ থেকে সরিয়ে আনে। ব্রাহ্মন্যবাদী ভারত উপমহাদেশের মুসলমানদের আছর, মাগরিব ও এশার নামাজ আদায়ে বিঘ্ন ঘটানোর জন্যই দিবারাত্র ম্যাচের আয়োজন করেছে।

ক্রিকেট শয়তানের কুমন্ত্রনা: জলি

পাকিস্তানের ক্রিকেট খেলোয়াড়দের প্রতি মুর্দাবাদ জানিয়ে জলি বলেন, তারা এই চক্রান্তের নির্বোধ সহায়ক। তিনি আফ্রিদির উদ্দেশ্যে তীব্র প্রতিক্রিয়া জানিয়ে বলেন, আফ্রিদির মুখে দাড়ি আছে কিন্তু বুকে ইসলাম নাই। আছে শুধু লোম। সত্য ও সুন্দরের পথে থাকলে এভাবে তিন ওয়াক্ত সালাত আদায়ের ফরজ থেকে সরে গিয়ে ইহুদি নাছারাদের এই তথাকথিত ক্রিকেটে সময় নষ্ট করতো না আফ্রিদি। আফ্রিদি সত্যই মুসলমান কি না তা নিয়ে সন্দেহ প্রকাশ করে আঞ্জুমান আরা জলি বলেন, শীঘ্রই তিনি পাকিস্তানে গিয়ে সরজমিন পরীক্ষা করে দেখবেন, আফ্রিদির মুসলমানি হয়েছে কি না।

জলির এই বক্তব্য সম্পর্কে প্রতিক্রিয়া কী তা জানতে চেয়ে মতিবেদক আমিনীর সঙ্গে যোগাযোগ করে তার ফোন বন্ধ পান।

March 30, 2011

নারীদিবসের শতবর্ষে শুধু মেয়েদের জন্য নতুন কলিং প্ল্যান চালু করল গ্রামীন ফোন

মতিকন্ঠ বিজনেস রিপোর্টঃ

গ্রামীন ফোন শুধু মেয়েদের জন্য চালু করল তাদের নতুন কলিং প্ল্যান। গতকাল গুলশানস্থ কর্পোরেট হেড কোয়ার্টারে এক সংবাদ সম্মেলনে গ্রামীন ফোনের নির্বাহী প্রধান সংবাদিকদের এই তথ্য দেন। আন্তর্জাতিক নারীদিবসের একশ বছর পূর্তি উপলক্ষে চালু করা এই নতুন প্ল্যানের সুবিধা পাবেন শুধু মেয়েরাই।

সংবাদ সম্মেলনে গ্রামীনের নির্বাহী প্রধান জানান “উই ব্লিড হোয়েন ইউ ব্লিড- এই প্ল্যানটার সুবিধা পাবেন কেবল মাত্র মেয়েরা, মাসের বিশেষ পাঁচদিনে।

“মাসের বিশেষ পাঁচদিনের প্রথম দিন মেয়েরা ২৪৯২ নম্বরে একটা এসএমএস পাঠালেই প্ল্যানে রেজিস্টার করতে পারবেন। প্ল্যানে রেজিস্টার করলে পরবর্তী পাঁচ দিন সকল কলে তারা ৫০% ছাড় পাবেন। এরপর আঠাশ দিন অন্তর অন্তর পাঁচ দিন ৫০% ছাড় দেওয়া হবে।”

“নারীদিবসের শতবর্ষে আমরা নারীদের সম্মান জানানোর এর চেয়ে ভালো বিকল্প কোনো পথ পাই নি।” গ্রামীন ফোনের নির্বাহী প্রধান সাংবাদিকদের এই ঘোষণা দেন।

জন্মলগ্ন থেকেই গ্রামীন ফোন এই দেশের মানুষের দুঃখ-কষ্ট আর আনন্দের ভাগীদার। মাসের এই পাঁচটা দিন অনেক মেয়ের জন্যই বেদনাদায়ক। আমরা সেই বেদনার ভার নিতে চাই। আমাদের ৫০% ছাড় সেই বেদনারই ভাগ নেওয়া। সেই থেকেই আমাদের “উই ব্লিড হোয়েন ইউ ব্লিড” কলিং প্ল্যানটার জন্ম।

পুরুষ মানুষরা এই প্ল্যানের সুফল গোপনে গ্রহন করলে সেটা কিভাবে এড়াবেন, এই প্রশ্নের জবাবে নির্বাহী প্রধান জানান যে তাঁরা মাঝে মাঝে তাঁদের সার্ভারে গ্রাহকদের কথোপকথনের কিছু কি-ওয়ার্ড সার্চ করবেন। পুরুষ মানুষরা তাঁদের আলাপচারিতাতে “বাল” বা এই জাতীয় শব্দ প্রচুর ব্যবহার করেন। এই ধরনের শব্দের ব্যবহার পাওয়া গেলে এই প্ল্যান থেকে গ্রাহককে বহিষ্কার করা হবে।

গ্রামীনের এই উদ্যোগ সুধীমহলে দারুণভাবে প্রশংসিত হয়েছে। এই অভিনব উদ্যোগের পর আশা করা যাচ্ছে যে অন্যান্য মোবাইল নেটওয়ার্কও একই ধরনের প্ল্যান নিয়ে বাজারে আসবে।

Tags:
March 30, 2011

এখনো সম্মানজনক সমাধান সম্ভব: আশরাফ

ঢাকা, মার্চ ২৯ (মতিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম) — ড. মুহাম্মদ ইউনূস ইস্যুতে এখনো সম্মানজনক সমাধান সম্ভব বলে মন্তব্য করেছেন স্থানীয় সরকার মন্ত্রী সৈয়দ আশরাফুল ইসলাম।

মঙ্গলবার রাতে গণভবণে আওয়ামীলীগের সভাপতিমণ্ডলীর বৈঠক শেষে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে দলটির সাধারণ সম্পাদক আশরাফ বলেন, ‘তার (ড. ইউনূস) সমস্যার সমাধান এখনো সম্ভব। কিন্তু তাকেই এগিয়ে আসতে হবে। আমরা যাব না।’

অনুমোদন না নিয়ে গ্রামীণ ব্যাংকের ব্যবস্থাপনা পরিচালক পদে থাকার কারণ দেখিয়ে কেন্দ্রীয় ব্যাংক গত ২ মার্চ নোবেলজয়ী ইউনূসকে অব্যাহতি দেয়। পাশাপাশি ইউনূসের বয়স নিয়েও আপত্তি তোলা হয় সরকারের মন্ত্রীদের বক্তব্যে। ইউনূসকে অব্যাহতি দেওয়ার সিদ্ধান্তে দেশে-বিদেশে ব্যাপক আলোচনা শুরু হয়। প্রধান বিরোধী দল বিএনপি এর সমালোচনায় মুখর হয়।

বিরোধীদলীয় নেতা খালেদা জিয়া এক সাক্ষাৎকারে মতিকণ্ঠকে বলেন, ‘আমরা কি আবুল মালের মালসামানার হিসাব চেয়েছি? আমরা কি এরশাদকে মুন্নী সাহার ওপর থেকে তার দড়ির মত পাকানো হাত সরিয়ে নিতে বাধ্য করেছি? বাকশালি সরকারের নিজেদের লোকজন যদি বুইড়া ভাম হতে পারে তাহলে ইউনূস ও গ্রামীণ ব্যাংকের ব্যবস্থাপনা পরিচালক পদে থাকতে পারেন।’

ইউ এস এস ইউনূসের মুক্তিপণের অংক নিয়ে সোমালি জলদস্যুদের সাথে দরকষাকষি করছেন নোবেলজয়ী ড. ইউনূস

ইউনূস এর বিরুদ্ধে হাইকোর্টে রিট আবেদন করলে তা খারিজ হয়ে যায়। হাইকোর্টের রায়ে সরকারি সিদ্ধান্তই বৈধতা পায়। ওই রায়ের বিরুদ্ধে গত ৯ মার্চ আপিলের আবেদন করেন ইউনূস।

অন্যদিকে গত ২১শে মার্চ, যুক্তরাষ্ট্রের সহকারী পররাষ্ট্রমন্ত্রী রবার্ট ব্লেক ঢাকা সফরে এসে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সাথে সাক্ষাৎ করেন। সাক্ষাৎকার শেষে তিনি বাংলাদেশ সরকারের প্রতি হুমকি দিয়ে বলেন, ‘তিনদিনের মধ্যে ইউনূস ও গ্রামীণ ব্যাংকের ব্যাপারে সম্মানজনক সমাধানে পৌঁছাতে না পারলে যুক্তরাষ্ট্র বাংলাদেশে বিমান হামলা চালাবে।’ যুক্তরাষ্ট্রের বিমান হামলার সিদ্ধান্তকে সাধুবাদ জানায় বিরোধীদল বিএনপি।

হুমকির পরিপ্রেক্ষিতে বাংলাদেশ সরকার ইউনূসের বিষয়টি নিয়ে তড়িঘড়ি করে একটি সম্মানজনক সমাধানে আসতে চেষ্টা করে। কিন্তু বেঁধে দেয়া সময়সীমার মধ্যে কোন সমাধানে পৌঁছাতে না পারায় হুমকি মোতাবেক যুদ্ধবিমানবাহী আমেরিকান রণতরী ইউ এস এস ইউনূস বঙ্গোপসাগরের উদ্দেশ্যে রওয়ানা দেয়। পথিমধ্যে সুয়েজ খাল অতিক্রম করার সময় সোমালি জলদস্যুরা রণতরীটি দখল করে নেয়। বর্তমানে মুক্তিপণের অংক নিয়ে মার্কিন কর্তৃপক্ষ সোমালি জলদস্যুদের সাথে দরকষাকষি করছে বলে জানা গেছে।

স্থানীয় সরকার মন্ত্রী সৈয়দ আশরাফুল ইসলাম বলেন, ‘ইউনূস ও গ্রামীণ ব্যাংক ইস্যুতে এখনো সম্মানজনক সমাধান সম্ভব। রণতরী ইউ এস এস ইউনূস সোমালি জলদস্যুদের হাতে আটকে পড়ায় ইউনূস ইস্যুতে বাংলাদেশ অপ্রত্যাশিতভাবে খানিকটা বাড়তি সময় পেয়ে গেল।’

সৈয়দ আশরাফ আরো বলেন, ইউনূসের বিষয় নিয়ে আমেরিকা আর বাংলাদেশের সম্পর্কে কোন প্রভাব পড়বে না। বাংলাদেশ ও আমেরিকার সম্পর্ক বহুমাত্রিক। শুধু ইউনূস প্রসঙ্গে এই সম্পর্কে কোন প্রভাব পড়বে না। তারপরও আমেরিকান সরকারকে খুশি করার জন্য দরকার হলে আগামী নির্বাচনে আওয়ামীলীগ আবার জয়ী হলে ইউনূসকে প্রেসিডেন্ট হবার জন্য অনুরোধ করা হবে।

%d bloggers like this: