আল্লাহর বিচারে প্রমানিত হয়েছে আল্লাহ জাতীয় পার্টির সমর্থক: এরশাদ

বিশেষ মতিবেদক

জাতীয় পার্টির চেয়ারমেন ও সাবেক স্বৈরাচারী রাষ্ট্রপতি পল্লীবন্ধু হুসেইন মুহম্মদ এরশাদ বলেছেন, আল্লাহর বিচার হয়েছে। এই বিচারের মাধ্যমে আল্লাহ প্রমান করেছেন যে তিনি জাতীয় পার্টির সমর্থক।

আজ রাজধানীর এক হোটেলে আয়োজিত এক অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে এ দাবী করেন এরশাদ।

পল্লীবন্ধু বলেন, খালেদা জিয়া আজ বলছেন, তাকে বাড়ি থেকে সরকারের ষড়যন্ত্রে এক কাপড়ে বের করে দেয়া হয়েছে। এ নিয়ে তিনি কান্নাকাটি করেন, ভাংচুর করেন, মানুষের জানমালের ক্ষতি করেন। অথচ আমাকে যখন এক কাপড়ে বাড়ি থেকে বের করে দেয়া হয়েছিল, তিনি তখন কিছু করেননি।

এরশাদ আবেগঘন কণ্ঠে বলেন, আমাকে আর বাড়ি থেকে আমার কাপড়গুলি সংগ্রহ করার সুযোগ দেয়া হয়নি। আমি সেই একটি কাপড় এখনও পরিধান করে চলছি। রাতে আমি কাপড়টি ধুয়ে ফেনের নিচে দড়ি টাঙ্গিয়ে শুকাতে দেই। যেদিন বিদ্যুৎ থাকে না, আর বাতাসের আদ্রতা বেশী থাকে, সেদিন আমার একমাত্র কাপড়টি সময় মত শুকায় না। সেদিন আমি আর বাড়ির বাইরে যেতে পারি না। খবরের কাগজ পরিধান করে ঘরে বসে বসে ফু দিয়ে ফু দিয়ে কাপড়টি শুকানর চেষ্টা করি। এ কারনেই আমি সরকারকে হুশিয়ারী জানাচ্ছি, বিদ্যুৎ সমস্যার সমাধান সবার আগে করতে হবে। অন্ন চাই, বস্ত্র চাই, বস্ত্র শুকানর বিদ্যুৎ চাই। বিদ্যুৎ নিয়ে আর কোন কৈফিয়ত জনগন শুনতে চায় না।

এরশাদ অশ্রুভরা চোখে বলেন, আমি রওশনকে অনেকবার বলেছি, তার একটি পায়জামা আমাকে ধার দিতে। সে দেয়নি। তাই রাগ করে আমি বিদিশাকে বিবাহ করলাম। বললাম, ওগো তোমার একটি পায়জামা আমাকে দিও, আমার কাপড় ধুয়ে ফেনের নিচে শুকাতে দিয়েছি। বিদিশাও দেয়নি। তাই আমি রাগ করে বিদিশাকে তেগ করেছি।

এরশাদ মুন্নী সাহাকে ধন্যবাদ দিয়ে বলেন, মুন্নী আমাকে বংগ বাজার থেকে একটি গেবার্ডিনের হাফপেন্ট খরিদ করে উপহার দিয়েছে।

এরশাদ বলেন, আমি জানি না, খালেদা জিয়াকেও আমার মত একটি কাপড় রাতে ধুয়ে শুকাতে দিতে হয় কি না। যদি তা হয়ে থাকে, তাহলে বুঝতে হবে আল্লাহ বিচার করেছেন, তিনি জাতীয় পার্টির সাথে আছেন।

পল্লীবন্ধু বৃহত্তর জামায়াতে ইসলামীর নেতা মওদুদ আহমদের তীব্র সমালোচনা করে বলেন, মওদুদ ছিলেন আমার ভাইস প্রেসিডেন্ট। আমি ছিলাম এরশাদ, তিনি ছিলেন উপএরশাদ। তার পুটুতে এখনও বিএনপির লাঠির বাড়ির দাগ খুজলে পাওয়া যাবে। আপনারা বিশ্বাস না করলে মওদুদকে বলুন, সংবাদ সম্মেলনে এসে পুটুর কাপড় তুলে দেখাতে। এই মওদুদের দশ বছরের সাজা হয়েছিল দুর্নীতির দায়ে। আমি তাকে মাফ করে দিয়েছিলাম। আর আজ সেই মওদুদ আইন কানুন বিচার আচার দুর্নীতি নিয়ে বড় বড় কথা বলে। সে একটি অভিশাপ।

সরকারকে হার্ড লাইনে না যাওয়ার বেপারে মওদুদের হুমকি প্রসঙ্গে পল্লীবন্ধু এরশাদ বলেন, সেই দিন আর নাই জনাব মওদুদ। এখন বাজারে এসেছে বিজয় টেবলেট। যখন ইচ্ছা আমরা হার্ড লাইনে যেতে পারি। যতক্ষন খুশি হার্ড লাইনে থাকতে পারি।

3 Comments to “আল্লাহর বিচারে প্রমানিত হয়েছে আল্লাহ জাতীয় পার্টির সমর্থক: এরশাদ”

  1. বিজয় টেবলেট এডিক্ট জাতীয় পার্টির চেয়ারমেন ও সাবেক স্বৈরাচারী রাষ্ট্রপতি পল্লীবন্ধু হুমু এরশাদের – মওদুদকে সংবাদ সম্মেলনে এসে পুটুর কাপড় তুলে দেখাতে বলায় ভীষণ অভিমান করেছেন মওদুদ। হুমু এরশাদকে শুধু অকৃতজ্ঞ নয়,কৃতঘ্নও দাবি করে মুন্নী সাহাকে এক অন্তরঙ্গ সাক্ষাৎকারে মওদুদ কান্নাভেজা গলায় বলেন, পিকক বারে বইসা সুরু চুরা আমার পুটু নিয়া আজেবাজে কতা কইছে,ঠিকাছে,মাইন্নানিছি কিন্তুক এইরম কতা অন্তত হুমু এরশাদের কাছে শুনতে হবে স্বপ্নেও ভাবি নাই। এতদিন ধরে তার চরিত্রের খেদমত করে আইজ আমার পুটু এইই সম্মান পেলো। তবে কুতায় গেলো মানবিকতা,কুতায় লুকালো ভালুবাসা,সময় কি সব কেড়ে নেয় ? তবে এটা যদি হুমু এরশাদ মন থেকে চেয়ে থাকেন আমি তাই করব। আইজ আমার পুটু দুনিয়ার সকল হুমুকে দেখাব। দেখি ভালুবাসা আর ঈর্ষা হুমু এরশাদের বুকে এখনো আছে কিনা একটু ।

    মওদুদ অভিমানে ক্ষোভে পুটুর কাপড় তুলে কেমেরার সামনে মেলে ধরলে এক উত্তেজক পরিস্হিতির সৃষ্টি হয়।কেমেরামেনের হাত থেকে কেমেরাখুলে পড়ে যায়।

    অন্যদিকে খালেক বেপারী এক পৃথক সংবাদ সম্মেলনে ওহী পাঠিয়ে দাবি করেছেন, আমি নাফরমান হুমু এরশাইদ্দা কি মওদুদইদ্যা কারো লগেই নাই। অসভ্য দুইটা আগে সারারাইতদিন কবিরা গুনাহ কইরা আমার আরশ কাপাইতো,ঘুমাইতে দিতো না।হেইকতা এখনো ভুলি নাই।

    সূত্র:অনলাইন ডেস্ক।

  2. Ki baper,new post nai kotodin. R story_r man_o to kome jacche. Keno???

  3. মোদুধ রে তেলপানি দিয়া তো কাগু আপ্নিই চকচকে বানাইছেন। এখন তো আপ্নার চাহারা নিয়া একটু বাজে কথা কইতেই পাড়ে। হাজার হলেও অনেক দিনের বেড পার্টনার।

Leave a Reply

Fill in your details below or click an icon to log in:

WordPress.com Logo

You are commenting using your WordPress.com account. Log Out / Change )

Twitter picture

You are commenting using your Twitter account. Log Out / Change )

Facebook photo

You are commenting using your Facebook account. Log Out / Change )

Google+ photo

You are commenting using your Google+ account. Log Out / Change )

Connecting to %s

%d bloggers like this: