মওদুদ ও ফখরুলের প্রতি এমাজ উদ্দীনের ক্ষোভ

নিজস্ব মতিবেদক

বৃহত্তর জামায়াতে ইসলামীর বিএনপি শাখার ভাঁড়প্রাপ্ত নায়েবে আমীর মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর ও উকিলে আমীর আল্লামা বেরিষ্টার মওদুদ আহমদের প্রতি ক্ষোভ প্রকাশ করেছেন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের সাবেক উপাচার্য আল্লামা ড. এমাজ উদ্দীন আহমদ।

গতকাল রাতে নিজ বাসভবনে আয়জিত এক সংবাদ সম্মেলনে এ ক্ষোভ প্রকাশ করেন আল্লামা এমাজ।

এমাজ উদ্দীন আহমদ বলেন, আমি বিকাল বেলা প্রেস ক্লাবে একটি সেমিনারের ডাক দিয়াছিলাম। সেমিনারের শিরনাম ছিল “তারেক জিয়ার সর্বনাশ করতে বাকশালী সরকারের মাত্রাতিরিক্ত উতসাহের পিছনে ভারতীয় ও ইসরাইলী গোয়েন্দা সংস্থার নেপথ্য ততপরতা”। এই সেমিনারে আমি ফখা ইবনে চখা ও বেরিষ্টার মওদুদকে বক্তব্য দিতে দাওয়াত করি।

আবেগঘন কণ্ঠে আল্লামা এমাজ বলেন, তারেক বাবারে নিয়া সেমিনারে না আসিয়া ফখা নিজের বাসভবনে সংবাদ সম্মেলন ডাকিয়া বসল। আমার সেমিনারের অর্ধেক সাংবাদিক চলিয়া গেল উত্তরায় ফখা ইবনে চখার বাসভবনে। সেখানে সে কি এক ঘোড়ার ডিম সংবাদ সম্মেলন করল তা কে জানে, কিন্তু আমার সেমিনার হতে সাংবাদিক ভাগাইয়া নিল সে আট আনা।

রুমালে অশ্রু মুছে আল্লামা এমাজ বলেন, বাকি আট আনা সাংবাদিক নিয়া আমি তখন খা খা ধু ধু শুন্য হলঘরে সেমিনার চালাইয়া যাইতেছি। মনে মনে ভাবছি, একটা ফখা না আইলে এমন কি লছ। তারেক বাবার প্রসংশা আমি একাই সারা দিন ধরিয়া করতে পারি। বেয়াদপ ফখা না আসায় আমি বরং একষ্ট্রা টাইম পাইলাম।

পুনরায় আবেগঘন কণ্ঠে আল্লামা এমাজ বলেন, কিন্তু বিধি বাম। বাকি আট আনা সাংবাদিকদের নিকট কে এক অভিশাপ মুঠোফোনে খুদেবার্তা পাঠাইয়া বলল, আল্লামা বেরিষ্টার মওদুদ হাসপাতালে হেফাজতের নায়েবে আমীর জুনায়েদ বাবুনগরীকে দেখতে গেছে। তখন বাকি আট আনা সাংবাদিকও সেমিনার তেগ করিয়া দৌড়াইতে দৌড়াইতে মওদুদের তামাশা দেখতে চলিয়া গেল। ঘর তখন খালি। ইষ্টেজের উপর একলা আমি তারেক বাবার প্রসংশা করিতেছি তখন।

মওদুদ ও ফখরুলের প্রতি তীব্র ক্ষোভ বেক্ত করে আল্লামা এমাজ বলেন, তুরা নাস্তিক দুইটা সেমিনারে বক্তব্য না দিবি ভাল কথা, চুপচাপ ঘরে বসিয়া থাকতি। কেন তুরা একজন সংবাদ সম্মেলন ডাকিয়া আমার নেয্য সাংবাদিকদিগের আট আনা আর আরেকজন বাবুনগরীকে দেখতে গিয়া বাকি আট আনা ভাগাইয়া লবি? সালা ঘোচু।

মওদুদের প্রতি বেশী ক্ষোভ প্রকাশ করে আল্লামা এমাজ বলেন, যেখানে ইউনূস বাবুনগরী তারেক বাবাকে বাবুনাগরিক শক্তিতে নিবে না বলিয়া অপমান করল, সেখানে তুই বেটা কুন সাহসে তার চাচাত ভাই জুনায়েদ বাবুনগরীকে দেখতে গেলি? তুকে বিএনপিতে ঢুকাইল কে তার নাম বল।

এ বেপারে মির্জা ফখরুলের সংগে যোগাযোগ করা হলে তিনি বলেন, সামনে আমার লিখিত পুস্তক প্রকাশিত হবে। সেই বেপারে কথা বলার জন্য সাংবাদিকদের দাওয়াত দিয়াছিলাম। আল্লামা এমাজের আতিথেয়তা বিহীন ভেদর ভেদর অপেক্ষা আমার বাড়িতে নানা মিষ্টান্ন ও বিরিয়ানী সহযোগে আমার ভেদর ভেদর অধিক মনরম। সাংবাদিকদের পেট সর্বদা সঠিক দিকে হেলিয়া থাকে। অতএব আল্লামা এমাজের কান্নাকাটির কুন দাম নাই।

মওদুদ আহমদ মুঠোফোনে মতিবেদককে হাসতে হাসতে বলেন, বিএনপি শাখার সব কাজই ত হেফাজতের কাছে আউটসর্সিং করা। বাবুনগরীকে হাসপাতালে দেখতে না গেলে কিভাবে হবে। বড় গনতন্ত্র তারেক জিয়াকে লইয়া গত ছয় বতসর ভেদর ভেদর করতেছি, এক দিন না করলে হুয়াটস দি প্রবলেম?

3 Comments to “মওদুদ ও ফখরুলের প্রতি এমাজ উদ্দীনের ক্ষোভ”

  1. ” ইসরাইলী গোয়েন্দা সংস্থার নেপথ্য ততপরতা”। এই সেমিনারে আমি ফখা ইবনে চখা ও বেরিষ্টার মওদুদকে বক্তব্য দিতে দাওয়াত করি” – amar laptop screen e eram font ashche.. porte partesina bhai please taratari thik koren …. please please, moti’r lekha thik moto porte na parle ami mara jabo. ya allah bachaaaaaaaaaaoooooooooooooooooooooo 😦

  2. the punch line আল্লামা এমাজের আতিথেয়তা বিহীন ভেদর ভেদর অপেক্ষা আমার বাড়িতে নানা মিষ্টান্ন ও বিরিয়ানী সহযোগে আমার ভেদর ভেদর অধিক মনরম।
    ফাডায়ালছে… just say to me where can I kiss you … please name the place

  3. মাইরা লা আমারে … 🙂

Leave a Reply

Fill in your details below or click an icon to log in:

WordPress.com Logo

You are commenting using your WordPress.com account. Log Out / Change )

Twitter picture

You are commenting using your Twitter account. Log Out / Change )

Facebook photo

You are commenting using your Facebook account. Log Out / Change )

Google+ photo

You are commenting using your Google+ account. Log Out / Change )

Connecting to %s

%d bloggers like this: