বাকশালের প্রতি বাবুনগরীর সশস্ত্র সংগ্রামের হুমকিকে স্বাগত জানালেন বিশিষ্ঠ বাবুনাগরিক বৃন্দ

নিজস্ব মতিবেদক

বাকশালের মহিলা আমীর শেখ হাসিনা ও বাকশালী অর্থ মন্ত্রী মালাই লামার হাত ভেংগে দেওয়ার হুমকির মাধ্যমে সশস্ত্র সংগ্রামী হুমকি ধমকির রাজনীতীর সুচনা করায় সদ্য গঠিত রাজনৈতিক দল বাবুনাগরিক শক্তির আমীর, বাংলাদেশের একমাত্র নোবেল বিজয়ী অর্থনীতীবীদ ও গ্রামীন বেংকের বিতাড়িত মালিক কায়েদে নোবেল ড. ইউনূস বাবুনগরীর প্রসংশা করে তাকে স্বাগত জানিয়েছেন তিন বিশিষ্ঠ বাবুনাগরিক।

আজ চট্টগ্রামে এক মহিলা সমাবেশে বক্তব্য দিতে গিয়ে নগদে শেখ হাসিনা ও মালাই লামার হাত ভাংগার হুমকি দেন বাবুনগরী।

এর প্রতিক্রিয়ায় আয়জিত এক সংবাদ সম্মেলনে উপমহাদেশের বিশিষ্ঠ ইতিহাসবীদ, কলামিষ্ট ও গান্ধীবাদী আন্দলনের প্রবাদ পুরুষ সৈয়দ আবুল মকসুদ বলেন, ইউনূস বাবুনগরী এতদিন শান্তির নোবেলটির দিকে তাকাইয়া চুপচাপ আছিল। কিন্তু সরকারের হালাল আয়ু এখন বাকি আছে আর মোটে সাত দিন। তাই এখন তর্জন গর্জন করলে কুন সমস্যা নাই। শান্তি যেথা ক্ষিন দুর্বলতা, হে আল্লাহ, দুই ঠেং যেন ভেংগে দেই তথা। কায়েদে নোবেলের হাত ভেংগে দেওয়ার সংগে শান্তির কুন সংঘর্ষ নাই। শান্তি বজায় রাখিয়াই শেখের বেটী ও মালাই লামার হাত ভাংগা সম্ভব।

বিশিষ্ঠ চিন্তাবীদ ও বৃহত্তর জামায়াতে ইসলামীর ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় শাখার আমীর আল্লামা আসিফ নজরুল ইঞ্চি বলেন, যে মানুষটির কারনে বিশ্বে আমরা একটা মান সম্মান নিয়া চলাফিরা করতে পারি, সেই মানুষটিকেই বাকশালী সরকার উপ্তা করে পুটু মেরে চলতেছে। যেখানে বাংলাদেশের পাসপুটে তার ছবি ছাপা হওয়ার কথা, যেখানে বাংলাদেশে ৫০০ টেকার নুটে বাঘের জলছাপের পাশে তার হাসিমুখ ছাপা হওয়ার কথা, সেখানে বাকশালের আমীর শেখের বেটী তার নিকট হতে আয়কর দাবী করে। যেখানে তার গ্রামীন বেংকের গদিটিতে অতিরিক্ত ফোম ও তুলা যোগ করিয়া আরও আরামদায়ক করিয়া দেওয়ার কথা, সেখানে তাহাকে ঘেটী ধরিয়া গদিহারা করা হইল। কাজেই তিনি হাত কেন, সংগে আইন ভাংগিলেও আমাদের বলার কিছু নাই। আমি ইউনূস বাবুনগরীর সশস্ত্র সংগ্রামকে স্বাগত জানাই। ভিভা লা রেভোলুশিওন, হে মাকারেনা।

বিশিষ্ঠ টেলিভিশন বেক্তিত্ব, টক শো শিল্পী ও নোবেল না পাওয়া অর্থনীতীবীদ আল্লামা পিয়াস করিম হাগু বলেন, ইউনূস এতদিন শুধু গড়েছেন। তিনি গ্রামীন বেংক গড়েছেন, নোবেল পেয়ে রেকড গড়েছেন, ৮৪ লক্ষ নারীর খামার গড়েছেন, দেশী বিদেশী প্রতিষ্ঠানের সংগে সামাজিক বেবসা গড়েছেন, ইস্পেনের রানী ইসাবেলা, যুক্তরাস্ট্রের রানী হিলারি রডহাম ক্লিনটন ও হলিউডের রানী শেরন স্টনের সংগে মধুর বন্ধুত্ব গড়েছেন। এত কিছু গড়ার পর দুই চাইরটা হাত ভাংলে সমাজের কুন ক্ষতি নাই। আমি তাকে সাবাশি দিয়া বলতে চাই, বাবুদা তুমি এগিয়ে চল, রংগের ঢংগের কথা বল।

সংবাদ সম্মেলনে শেষে তিন বিশিষ্ঠ বাবুনাগরিক কোরাসে “হাত ভেংগে দাও হাত ভেংগে দাও হাত ভেংগে দাও ভাআআআআংগো” গান পরিবেশন করেন। এ সময় সৈয়দ আবুল মকসুদের পোষা ছাগল পুটুও তাদের সংগে যোগ দেন।

6 Comments to “বাকশালের প্রতি বাবুনগরীর সশস্ত্র সংগ্রামের হুমকিকে স্বাগত জানালেন বিশিষ্ঠ বাবুনাগরিক বৃন্দ”

  1. বাবুনগরী হাত ভেঙ্গে দেওয়ার কথা বললে কেনো যে লোকজন শান্তি পুরস্কারের ব্যপারটা নিয়া আসে, কে জানে। শেক্সপিয়ার নিজেই হ্যামলেট-এ লিখেছেন, ” I must be cruel only to be kind. “। এর পর লোকজনের কুনু কথাই কাজে আইবো না। 😀

  2. ………r gulapi hat venge dau,venge dau

  3. নোবেল না পাওয়া অর্থনীতীবীদ আল্লামা পিয়াস করিম হাগু বলেন……..

    ভাই, তোরা কেমনে পারস্ ? সাবধার থাকিস। বৃহত্তর জামাতির খানকির পোলারা ক্ষমতায় গেলে ত তোদের উপ্তা করে ….

  4. শান্তি যেথা ক্ষিন দুর্বলতা, হে আল্লাহ, দুই ঠেং যেন ভেংগে দেই তথা।

  5. বাবুনাগরিকের আমিররে উপ্তা কইরা সালামি দেওয়া হোক।

  6. হাত ভেংগে দাও হাত ভেংগে দাও হাত ভেংগে দাও ভাআআআআংগো

Leave a Reply

Fill in your details below or click an icon to log in:

WordPress.com Logo

You are commenting using your WordPress.com account. Log Out / Change )

Twitter picture

You are commenting using your Twitter account. Log Out / Change )

Facebook photo

You are commenting using your Facebook account. Log Out / Change )

Google+ photo

You are commenting using your Google+ account. Log Out / Change )

Connecting to %s

%d bloggers like this: