আনোয়ারের অডিও ফাঁসের প্রতিবাদে হরতাল

নিজস্ব মতিবেদক

মার্কিন যুক্তরাস্ট্রের মুসলমান প্রেসিডেন্ট বারাক হোসেন ওবামা কতৃক বৃহত্তর জামায়াতে ইসলামীর বিএনপি শাখার নায়েবে আমীর মুবাইলে কুকাম আনোয়ার ওরফে এম কে আনোয়ারের ফোন আলাপনের অডিও ফাস হওয়ার প্রতিবাদে সোমবার থেকে ৬০ ঘন্টার হরতাল ডেকেছে বৃহত্তর জামায়াত।

আজ এক সংবাদ সম্মেলনে হরতালের কথা পাকাপাকি করেন বিএনপি শাখার ভাঁড়প্রাপ্ত নায়েবে আমীর ও জাতীয়তাবাদী শক্তির ‘কমপ্লান বয়’ মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর।

ফখা ইবনে চখা বলেন, বারাক হোসেন আমাদের নায়েবে আমীর মতি কণ্ঠ আনোয়ারের অডিও আলাপ আড়ি পাতিয়া শুনতে গেছেন কেন, আমরা জানি না। শুনছেন ভাল কথা, সেই আলাপ আবার কেন জুলিয়ান এসাঞ্জের হাতে লিক করার সুযুগ দিলেন, তাও আমরা জানি না। কিন্তু কাজটা তিনি ভাল করেন নাই।

আবেগঘন কণ্ঠে মির্জা বাড়ির গৌরব বলেন, সারাদিন রাজনীতীর ময়দানে হাড় ভাংগা খাটুনির পর তনুমন চায় একটু বিশ্রাম। একটু রুমান্টিক আলাপন। যুবক বয়সে কামান চালনাতেই তৃপ্তি বেশী। কিন্তু বৃদ্ধ বয়সে কামান চালনায় নানা সমস্যা দেখা দেয়। তাই গোলার আওয়াজেই খুশী থাকতে হয়। আনোয়ার ভাই সারা দিন পরিশ্রমের পর রাত্র কালে আর কি করবেন? টেলিভিশন ছাড়লে সব চেনেলে টক শো। সব চেনেলেই ফরহাদ মজহার লুংগি অথবা আসিফ নজরুল ইঞ্চি অথবা পিয়াস করিম হাগুর ভয়ানক কথা বার্তা শুনতে হয়। তাই একটু আওয়াজ সুখের জন্য আনোয়ার ভাই উনার এক বিবাহিত বান্ধবীকে ফুন দিয়া নিরিবিলিতে কামানের মজা গোলায় মিটানর চেস্টা করেছিলেন। আর নিগ্র ওবামা কিনা সেই গোলার আওয়াজ ফাস করিয়া দিল।

হরতাল হরতাল

মার্কিন যুক্তরাস্ট্রের এহেন আচরনের প্রতিবাদ জানিয়ে ফখা বলেন, পথ একটাই। ৬০ ঘন্টা হরতাল।

হরতালে জন জীবনে সমস্যার দিকে দৃস্টি আকর্ষন করা হলে মির্জা ফখরুল বলেন, জন জীবনে সমস্যা ত আমরা কি করব? আমাদের জীবনে ত আর কুন সমস্যা হইতেছে না। হরতালের ডাক দিয়া হয় উত্তরার বাড়িতে নয় নয়া পল্টনের কার্যালয়ে গিয়া কেচি গেটে তালা মারিয়া বসিয়া থাকব। টেলিভিশন আছে, ভিসিআর আছে, হরতালের সময়টা উত্তম সুচিত্রার কুন ছায়াছবি দেখিয়া পার করিয়া দিব।

ক্লাস এইটের জেএসসি পরীক্ষার্থী শিশুদের সমস্যার কথা তুলে ধরলে ফখা ইবনে চখা হাসতে হাসতে বলেন, আমার গুস্টিতে কেহই জেএসসি পরীক্ষা দিতেছে না। মেডামের গুস্টির লুকজনও দিতেছে না। বিএনপি শাখার কেহই জেএসসি পরীক্ষা দিতেছে না। বৃহত্তর জামায়াতের কেহই জেএসসি পরীক্ষা দিবে না। আর এত পরীক্ষা দিয়া কি হবে? ক্লাস এইট পাশ না করিলে কি ক্ষতি হবে? ইস্কুলে সময় অপচয় না করিয়া ঘরে বসে ককটেল প্রস্তুত করা শিখলেও ত হরতালে কাজ করে দুটু আয় উপার্জন করা সম্ভব।

ও লেভেল এ লেভেলের পরীক্ষার্থীদের জন্য বিগত হরতালে ছাড় দেওয়ার কথা তুলে ধরলে ফখা বলেন, ইংরাজী মাধ্যমে আমাদের অনেক নেতার ছেলেমেয়ে লিখাপড়া করে। ওদের একটা ভবিষ্যত আছে না?

বাংলা মাধ্যমে লিখাপড়া করা শিশুদের ভবিষ্যত আছে কিনা, এ প্রশ্নের সরাসরি উত্তর না দিয়ে মির্জা ফখরুল বলেন, বুঝেনই ত।

One Comment to “আনোয়ারের অডিও ফাঁসের প্রতিবাদে হরতাল”

  1. আর এত পরীক্ষা দিয়া কি হবে? ক্লাস এইট পাশ না করিলে কি ক্ষতি হবে? ইস্কুলে সময় অপচয় না করিয়া ঘরে বসে ককটেল প্রস্তুত করা শিখলেও ত হরতালে কাজ করে দুটু আয় উপার্জন করা সম্ভব।মেডাম ও কেলাস এইটের বেশি পড়েন নাই, দেশের মানুষ এর থেকে বেশি পড়িয়া করিবে কি।

Leave a Reply

Fill in your details below or click an icon to log in:

WordPress.com Logo

You are commenting using your WordPress.com account. Log Out / Change )

Twitter picture

You are commenting using your Twitter account. Log Out / Change )

Facebook photo

You are commenting using your Facebook account. Log Out / Change )

Google+ photo

You are commenting using your Google+ account. Log Out / Change )

Connecting to %s

%d bloggers like this: