জেনারেল জিয়াই দেশের প্রথম এভারেষ্ট জয়ী

লনডন মতিনিধি

সকল বিতর্কের অবসান ঘটিয়ে একাত্তরের রেম্ব জেনারেল জিয়াউর রহমানকে দেশের প্রথম এভারেষ্ট জয়ী ঘোষনা করেছেন বৃহত্তর জামায়াতে ইসলামীর বিএনপি শাখার আওলাদে আমীর, জাতীয়তাবাদী শক্তির ভবিষ্যত মালিক ও শহীদ প্রেসিডেন্ট জিয়াউর রহমানের যোগ্য উত্তরসুরী পলাতক চিকিতসাধীন তরুন নেতৃত্ব মিষ্টার ফিপটিন পারসেন্ট বড় গনতন্ত্র তারেক জিয়া।

ঐতিহাসিক ২৫ মার্চ লনডনের একটি হটেলে লনডন বিএনপি আয়জিত এক অনুষ্ঠানে তিনি এ ঘোষনা দেন।

তারেক জিয়া বলেন, একাত্তরের রেম্ব জেনারেল জিয়াই বাংলাদেশের প্রথম এভারেষ্ট জয়ী। এ বেপারে কুন সন্দেহর অবকাশ নাই। ১৯৭১ সালের ১ জানুয়ারী তারিখে তিনি চট্টগ্রাম হতে এভারেষ্ট অভিমুখে যাত্রা করেন। ২৩ মার্চ তারিখে তিনি এভারেষ্ট জয় করে কাটমুন্ডু ফিরে আসেন। ২৫ মার্চ অপারেশন সার্চলাইট চলা কালীন সময়ে তিনি কাটমুন্ডু হতে জাহাজে করিয়া চট্টগ্রামে ফিরত আসেন এবং কালুর ঘাট বেতার কেন্দ্র হতে বাংলাদেশকে স্বাধীন ঘোষনা করেন। ঐ ঘোষনায় তিনি বলেন, আর জে জিয়া ফিচারিং বংগবন্ধু, আজ আমাদের ছুটি ও ভাই আজ আমাদের ছুটি।

আবেগঘন কণ্ঠে বড় গনতন্ত্র বলেন, এভারেষ্ট জয় করতে নেপালে যাওয়ার কারনেই তিনি বাংলাদেশকে আরও আগে স্বাধীন ঘোষনা করতে পারেন নাই। তখন যদি তিনি দেশে থাকতেন, তাহলে তিনি জানুয়ারী মাসেই বাংলাদেশকে স্বাধীন ঘোষনা করিয়া ফেলতেন। এভারেষ্টের কারনে আমরা ৩ মাস পিছাইয়া গেলাম।

১৯৭১ সালের ২৬ মার্চ এর দৈনিক ইত্তেফাকের কপি প্রদর্শন করে তারেক জিয়া বলেন, ইত্তেফাক পড়লেই বুঝতে পারবেন ঘটনা কি ঘটছিল।

চক্রান্ত কারী মহলকে হুশিয়ার করে দিয়ে মিষ্টার ফিপটিন পারসেন্ট বলেন, আমি লনডনে চিকিতসা করতে আসার পর শুনছি কে এক মোছা ইব্রাহীম নিজেকে প্রথম এভারেস্ট জয়ী দাবী করতেছে। আমি এই মোছাকে হুশিয়ার করে বলে দিতে চাই, এভারেষ্ট লই কুন চুদুর বুদুর ছইলত ন।

8 Comments to “জেনারেল জিয়াই দেশের প্রথম এভারেষ্ট জয়ী”

  1. আর জে জিয়া ফিচারিং বংগবন্ধু, আজ আমাদের ছুটি ও ভাই আজ আমাদের ছুটি।

  2. সবকিছুই ভালো, তবে ওয়েবসাইটের ফন্ট সাইজ বড় করা দরকার একটু। নইলে বুঝতে পারতেছি না। পড়তে কষ্ট হচ্ছে…

  3. খালি এভারেস্ট এর কথা কইছে ?? বঙ্গোপসাগর এর তলায় যে রেম্ব জিয়া খালি হাতে গেস খুইজা বাইর করছে, ওইটা কয় নাই ??

  4. WE ALL SHOULD BE COURTEOUS..WE MUST RECOGNITION THE HISTORY….HISTORY NEVER BE BLIND.IT WILL PLACE YOU IN YOUR OWN PLACE…..I HEARD SHAHID ZIA.S FIRST ANNOUNCEMENT AND AMENDED ANNOUNCEMENT………

    • I HEARD SHAHID ZIA.S FIRST ANNOUNCEMENT AND AMENDED ANNOUNCEMENT” শোনা কথায় কান দিতে নেই জনাব জাইগিরধার, বরং ২৫ মার্চ রাতে বঙ্গবন্ধুর পক্ষে সর্ব প্রথম স্বাধীনতার ঘোষণা পত্র পাঠ করেন চট্টগ্রামের তৎকালীন আওয়ামীলীগ নেতা এম এ হান্নান !!!! যদি ইতিহাস RECOGNITION করতে চান , তাহলে স্বাধীন বাংলা বেতার কেন্দ্রের প্রতিষ্ঠাতা বেলাল মোহাম্মদের লেখা বই/ সাক্ষাতকার পড়তে পারেন !!! বরং ২৭ মার্চ জিয়ার দ্বারা স্বাধীনতার ঘোষণা পত্র পাঠ করানোর একমাত্র উদ্দেশ্য ছিল – জনগণ কে বুঝানো যে, পাকিস্থান সেনা বাহিনীর বাঙ্গালী ইউনিট স্বাধীনতার পক্ষে আছে !!!

  5. ওয়েবসাইটের ফন্ট সাইজ বড় করা দরকার

  6. কিভাবে পারে! =)))))))))))

  7. “২৫ মার্চ অপারেশন সার্চলাইট চলা কালীন সময়ে তিনি কাটমুন্ডু হতে জাহাজে করিয়া চট্টগ্রামে ফিরত আসেন এবং কালুর ঘাট বেতার কেন্দ্র হতে বাংলাদেশকে স্বাধীন ঘোষনা করেন। ঐ ঘোষনায় তিনি বলেন, আর জে জিয়া ফিচারিং বংগবন্ধু, আজ আমাদের ছুটি ও ভাই আজ আমাদের ছুটি।…” :v

Leave a Reply

Fill in your details below or click an icon to log in:

WordPress.com Logo

You are commenting using your WordPress.com account. Log Out / Change )

Twitter picture

You are commenting using your Twitter account. Log Out / Change )

Facebook photo

You are commenting using your Facebook account. Log Out / Change )

Google+ photo

You are commenting using your Google+ account. Log Out / Change )

Connecting to %s

%d bloggers like this: