Archive for July 24th, 2014

July 24, 2014

জেনারেলের কবরে জেনানার তাণ্ডব

নিজস্ব মতিবেদক

বিএনপি শাখার প্রতিষ্ঠাতা একাত্তরের রেম্ব জেনারেল জিয়াউর রহমানের কবরে পুষ্প মালা অর্পনের সময় বেপক তাণ্ডবে বিপর্যস্ত হয়ে পড়েছে বৃহত্তর জামায়াতে ইসলামীর বিএনপি শাখার ঢাকা মহানগর উপশাখার নতুন মজলিশে শুরা।

আজ সংসদ ভবনের নকশা বিনস্ট করে নিকটস্থ চন্দৃমা উদ্যানে নির্মিত জিয়ার মাজারে পুষ্প দিতে গিয়ে এই তাণ্ডবের সুত্রপাত করেন বিএনপি শাখার কতিপয় উত্তেজিত নেতা নেত্রী।

এর আগে ঢাকা মহানগর উপশাখার নতুন মজলিশে শুরার আমীর ‘বংগ মলটভ’ মির্জা বাড়ির মেজ গৌরব মির্জা আব্বাস ও বিএনপি শাখার ভাঁড়প্রাপ্ত নায়েবে আমীর, জাতীয়তাবাদী শক্তির ‘কমপ্লান বয়’ ও মির্জা বাড়ির বড় গৌরব আল্লামা মির্জা ফখরুল ইসলাম আগুনগীর ওরফে ফখা ইবনে চখা কাধে কাধ মিলিয়ে চন্দৃমা উদ্যান অভিমুখে গাড়িতে করে লং মার্চ করেন।

একাত্তরের রেম্বর কবরে পুষ্প মালা অর্পনের সময় এক ভয়াবহ তাণ্ডবের সৃস্টি হয়।

বিএনপি শাখার হিন্দু উপশাখার আমীর ও স্থায়ী কমিটির সদস্য গয়েশ্বর চন্দ্র রায় জিয়ার কবরে মাল্য দানের সময় ফখা ইবনে চখার পাশে দাড়াতে চাইলে তাকে বাধা দেন মহানগর শাখার নতুন মজলিশে শুরার নায়েবে আমীর হাবিবুননবী খান সোহেল ওরফে হাবু সোহেল। তিনি গয়েশ্বরকে ঘাড়ে ধরে সরিয়ে মির্জা ফখরুলের পাশে এসে দাড়ালে গয়েশ্বর তীব্র তাণ্ডবের সুত্রপাত করেন।

এ সময় হাবু সোহেল গয়েশ্বরকে কাফের বলে সম্বোধন করলে পরিস্থিতি আরও উত্তপ্ত হয়ে ওঠে। গয়েশ্বরও ইসলামের দৃস্টিতে পবিত্র রমজানে মুর্দা বেক্তির কবরে পুষ্প মালা দিয়ে পুজার কুফলের বেপারে ইংগিত করলে সমগ্র মাজারে উত্তেজনা ছড়িয়ে পড়ে।

এরপর কে আগে গয়েশ্বরকে আঘাত করবেন, এ নিয়ে বিশেষ নৃশংস স্কোয়াড ফেন্টাষ্টিক ফাইভের সদস্য ও সাবেক সংসদ সদস্য নীলু পাণ্ডের সংগে ছাত্রদলের কেয়া পাণ্ডের সংঘাত সৃস্টি হলে কেয়া পাণ্ডে নীলু পাণ্ডের চুল ধরে টানাটানি করেন ও তাকে ঘুষি মারেন। এ ছাড়া মহিলা দলের আমীর নুরী পাণ্ডের ওপরও কতিপয় নাম না জানা পাণ্ডে ঝাপিয়ে পড়লে বিএনপি শাখার অন্যান্য নায়েব বৃন্দ আতংকে ছুটাছুটি শুরু করেন।

 

জেনারেলের কবরে জেনানার তাণ্ডব

পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রনে আনার জন্য ভাঁড়প্রাপ্ত নায়েবে আমীর ফখা ইবনে চখা কোন চেস্টা না করে নীরবে পুষ্প মালা হাতে দাড়িয়ে থাকেন। এ সময় তাকে মিটিমিটি হাসতে দেখা যায়।

এ বেপারে তার বক্তব্য জানতে চাইলে নাম প্রকাশ না করার শর্তে আগুনগীর মতিকণ্ঠকে বলেন, সামনে আন্দুলন। আমাদের নেতা নেত্রীদের শরীলে এখন হাতির বল। তাছাড়া একাত্তরের রেম্বর সমাধি ছুট, আর আমরা কতগুলু নায়েব। একটু ঠেলাঠেলি ধাক্কাধাক্কি ত হবেই। কিন্তু রাজপথে যখন নামব তখন জায়গার অভাব হবে না, আর মাইরগুলুও তখন একে অন্যকে না দিয়া পুলিশ ও পাবলিককে দিব।

বিশেষ নৃশংস স্কোয়াড ফেন্টাষ্টিক ফাইভের ফর্ম পড়ে যাচ্ছে কিনা, এ বেপারে নীলু পাণ্ডের সংগে যোগাযোগ করা হলে তিনি বলেন, পেকটিশের অভাবে আজ কেয়া পাণ্ডের হাতে মাইর খাইলাম। তবে এ সকলই ফ্রেন্ডলী ফায়ার।

হাবু সোহেলের হাতে আহত নায়েবে আমীর গয়েশ্বর চন্দ্র রায়ের সংগে যোগাযোগ করা হলে তিনি নাম প্রকাশ না করার শর্তে বলেন, বিএনপি শাখায় লাথি ঘুষি খাইয়া কুনমতে টিকিয়া আছি। ঈদের সেলামীর জন্য লাইন দিলে ফখরুল আর খোকা মারে, আর একাত্তরের রেম্বর কবরে মালা দিতে গেলে হাবু সোহেল মারে। ইসরাইলও ফিলিস্তিনিদের এইভাবে মারে না। লাঞ্ছনা বঞ্ছনা গঞ্জনা ইজ মাই মিডিল নেম। জেনারেল জিয়ার কবরে মালা না দিয়া এই পবিত্র রমজানে বিশেষ নফল নামাজ ও ফাতেহা পাঠের আয়জন করার কথা বলায় আজ আমি নির্যাতিত। এতদিন জানতাম কবরের আযাব কবরের ভিতরে হয়, কিন্তু কবরের বাইরেও যে এইরুপ আযাবের মুখমুখী হব, তা আগে বুঝি নাই।

হুহু করে কেদে উঠে গয়েশ্বর বলেন, রমজানের পবিত্রতা রক্ষা করুন।

July 24, 2014

ভরপেট না-ও খাই, আয়কর দেওয়া চাই

%d bloggers like this: