রবী ঠাকুর আমার সর্বাপেক্ষা প্রিয় ঠাকুর: ফখা

নিজস্ব মতিবেদক

সিংগাপুরে চিকিতসা ও আইএসআই এর সিংগাপুর শাখার আমীর মেজর জেনারেল আকবর লাহরীর সংগে পরামর্শ শেষে দেশে ফিরে এসে রবী ঠাকুরের বিলম্বিত মৃত্যু বার্ষীকীতে আয়জিত সাংস্কৃতিক মিলাদ মহাফিলে বৃহত্তর জামায়াতের বিএনপি শাখার ভাঁড়প্রাপ্ত নায়েবে আমীর, জাতীয়তাবাদী শক্তির ‘কমপ্লান বয়’ ও বড় গুন্ডে কতৃক ‘হাইড এন্ড সিক’ কলংকে ভুষিত মির্জা বাড়ির বড় গৌরব মির্জা ফখরুল ইসলাম আগুনগীর ওরফে ফখা ইবনে চখা বলেছেন, রবী ঠাকুর আমার সর্বাপেক্ষা প্রিয় ঠাকুর।

আজ উত্তরায় নিজ বাসভবনে আয়জিত সাংস্কৃতিক মিলাদ মহাফিলে এ কথা বলেন ফখা ইবনে চখা।

অনুষ্ঠানে আগুনগীর বলেন, রবী ঠাকুর আমার জীবনের সর্বাপেক্ষা বড় প্রেরনা। ছুটকালে তার লেখা ‘তালগাছ এক পায়ে দাড়িয়ে’ কবিতাটি পাঠ করিয়া আমার আক্কেল খুলিয়া যায়। সেই শিশুকাল হতেই আমি টের পাইয়াছি, তালগাছ ছাড়া জীবনে বিচার আচার সকলই বৃথা। তালগাছের জন্য আমি এক পায়ে খাড়া।

ফেসিবাদী বাকশালী সরকারের প্রহসনের নির্বাচনের নিন্দা করে মির্জা বাড়ির বড় গৌরব বলেন, নির্বাচনের তালগাছ তাদের সারেন্ডার করতে হবে।

রবী ঠাকুরের ভুয়সী প্রসংশা করে আবেগঘন কণ্ঠে ফখা ইবনে চখা বলেন, আমার জীবনে হেন কুন অনুভুতি নাই, যা নিয়া ওঁ কিছু লেখেন নাই। তিয়াত্তর বতসর হয়ে গেল তিনি আল্লাহর পেয়ারা হয়েছেন, কিন্তু তার রচনাবলীর পাতায় পাতায় শুদু আমার মনের কথাগুলু লিখা।

হুহু করে কেদে উঠে ফখা বলেন, সারাটি জীবন মাথার ঘাম পায়ে ফেলিয়া চাকরের নেয় খাটাখাটনির পরও যখন লনডন হতে আওলাদে আমীর বড় গনতন্ত্র বড় গুণ্ডে আমায় ‘হাইড এন্ড সিক’ বলিয়া গালাগালি করেন, তখন আমি অনুভুতি খুজিয়া পাই রবী ঠাকুরের গানে, তবে তুমি যাহা চাও তাই যেন পাও আমি যতই দুঃখ পাই গ, আমার পরান যাহা চায়, তুমি তাই তুমি তাই গ।

রবিয়া চুরা না মেরা জিয়া: ফখা

অশ্রু মুছে আগুনগীর বলেন, ঈদে সেলামী লইতে গিয়া যখন হাটুর বয়সী নায়েবদের হাতে লাইনে আগে পিছে দাড়ান নিয়া প্রহার খাই, তখন অনুভুতি খুজিয়া পাই রবী ঠাকুরের গানে, আমার সকল দুখের প্রদীপ জ্বেলে দিবস গেলে করব নিবেদন, আমার বেথার পুজা হয়নি সমাপন।

বাকশালের তীব্র সমালচনা করে জাতীয়তাবাদী শক্তির কমপ্লান বয় বলেন, এক দেড়শ মনির পুড়ানর অপরাধে সালারা আমার নামে মকদ্দমা করিয়া দিছে। সাংবাদিক ঘোচুরা আসিয়া আমায় বলে, ফখা সার আপনার অনুভুতি কি? আমি তাদের বলি, আমার অনুভুতি ত রবী ঠাকুর বলিয়া দিয়া গেছে, হৃদয়ে মন্দৃল ডমরু গুরু গুরু, ঘন মেঘের ভুরু কুটিল কুঞ্চিত।

সাংস্কৃতিক মিলাদ মহাফিলে উপস্থিত সাংবাদিকদের উদ্দেশ করে হাসতে হাসতে ফখা ইবনে চখা বলেন, সারাদিন রাজনীতীর হাড় ভাংগা খাটাখাটনির পর অবসরে মির্জা বাড়ির ছুট গৌরব ছুট মির্জা আসাদুজ্জামান নুরের আবৃত্তি করা রবী ঠাকুরের কবিতা শুনি। রবী ঠাকুর শুদু একজন বস প্রকৃতির লোকই নন, তিনি একজন প্রকৃত বস লোক। ইয়া রবী সালাম আলাইকা।

রবী ঠাকুরের সমালচনাকারী কতিপয় অর্বাচীনকে উদ্দেশ করে আগুনগীর বলেন, কতিপয় ঘোচু রবীর নামে বদনাম করিয়া ইদানীং লাইক শেয়ার কামাই করতেছে। এগুলুকে সামনে পাইলে জুতাপিটা করব।

One Comment to “রবী ঠাকুর আমার সর্বাপেক্ষা প্রিয় ঠাকুর: ফখা”

  1. রবী ঠাকুর শুদু একজন বস প্রকৃতির লোকই নন, তিনি একজন প্রকৃত বস লোক। ইয়া রবী সালাম আলাইকা। 😛

Leave a Reply

Fill in your details below or click an icon to log in:

WordPress.com Logo

You are commenting using your WordPress.com account. Log Out / Change )

Twitter picture

You are commenting using your Twitter account. Log Out / Change )

Facebook photo

You are commenting using your Facebook account. Log Out / Change )

Google+ photo

You are commenting using your Google+ account. Log Out / Change )

Connecting to %s

%d bloggers like this: