এসএসসি পরীক্ষায় অংশ নিচ্ছেন মেডাম

নিজস্ব মতিবেদক

চলমান রাজনৈতিক সন্ত্রাসের মধ্যে এসএসসি পরীক্ষার সময় হরতাল, অবরোধ ও মনির পুড়ানি কর্মসুচী অব্যাহত রাখার ঘোষনা দিয়েছেন বৃহত্তর জামায়াতে ইসলামীর বিএনপি শাখার মহিলা আমীর ও জাতীয়তাবাদী শক্তির মালিক মাদারে গনতন্ত্র বেগম খালেদা জিয়া জেএসসি।

শনিবার বিকালে মেডামের গুলশানের কার্যালয়ে থাকা নেতা কর্মীদের সঙ্গে আলাপে এ ঘোষনা দিয়েছেন মাদারে গনতন্ত্র।

মেডামের মিডিয়া নায়েব মারুফ কামাল খান মতিকণ্ঠকে বলেন, এসএসসি পরীক্ষার মধ্যেও অবরোধ ভাঙ্গচুর জ্বালাও পোড়াও চলবে। কুন থামাথামি নাই।

লক্ষ লক্ষ এসএসসি পরীক্ষার্থীর ভাগ্য বিড়ম্বনা নিয়ে প্রশ্ন তুললে মারুফ কামাল খান হাসতে হাসতে বলেন, আমরার মেডামও এইবার এসএসসি পরীক্ষা দিতেছেন। কাজেই এসএসসি পরীক্ষার্থীদের উছিলা দিয়া কুন ফয়দা হইত না।

নাম প্রকাশ না করার শর্তে মারুফ কামাল খান বলেন, বেগম জিয়া জেএসসি এই বছর বাড্ডা উচ্চ বালিকা বিদ্যালয় হতে বানিজ্য শাখায় এসএসসি পরীক্ষায় অংশ লইতেছেন।

কেন মেডাম বানিজ্য শাখায় এসএসসি পরীক্ষা দিচ্ছেন, জানতে চাইলে মারুফ কামাল খান বলেন, বিজ্ঞান আমাদের দিতেছে বেগ, কিন্তু কাড়িয়া লইতেছে আবেগ। বিজ্ঞান লইয়া পড়ালিখা করলে আবেগ হাইজেক হইতে পারে। তাছাড়া বিজ্ঞান আজ বলে এক কথা, কাল বলে আরেক কথা। রাজনীতীর নেয় বিজ্ঞানেও শেষ কথা বলিয়া কিছু নাই। মেডাম এক কথার মানুষ। উনি ছিয়ানব্বই সালে বলছিলেন রাজনীতীর নামে হরতাল ভাঙ্গচুর জ্বালাও পোড়াও ঠিক নহে, এখনও তাই বলেন। আর বিজ্ঞানে যা কিছু আবিস্কার হয় তার সবই পবিত্র কুরানে আছে। ইসলাম ধর্ম শিক্ষায় এ প্লাস পাইলেই অটমেঠিক বিজ্ঞানে এ প্লাস দিয়া দেওয়া উচিত। আর মানবিক শাখায় লিখাপড়া করলে পরে রাজনীতী করতে অসুবিধা। মানবিক লিখাপড়া করিয়া মানবিকতা একবার শিখিয়া ফেললে পরে মনির পুড়ানির হুকুম দিতে সমস্যা হইতে পারে। তাই ভবিষ্যতে গদিতে গিয়া হিসাব নিকাশের সুবিধার জন্য বানিজ্য শাখাতে লিখাপড়া করাই উত্তম। তাই মেডাম বানিজ্য শাখায় এসএসসি পরীক্ষা দিবেন।

অবিলম্বে সরকারকে গুলশান কার্যালয়ের বিদ্যুত সংযোগ ফিরিয়ে দেওয়ার আহোভান জানিয়ে মারুফ কামাল খান বলেন, ইহা নিকৃস্ট নিস্ঠুরতা। আমরা কয়েক শত মনির পুড়াইছি, পারলে তুমরাও আমাদিগের কয়েক শত এনি বুলু টুকু ফালু লালু দুলু খোকা দুদু পুড়াইয়া দেও। গনতন্ত্রে এই সব কুন বেপার নহে। তাই বলিয়া কারেন্টের তার কাটিয়া দিবি রে পুড়ারমুখী?

সরকার গুলশান কার্যালয়ের বিদ্যুত সংযোগ কেটে দিয়ে মাদারে গনতন্ত্রকে এসএসসিতে ফেল করানর নিকৃস্ট নিস্ঠুর ষড়যন্ত্রে লিপ্ত, এমন অভিযোগ করে মারুফ কামাল খান বলেন, পাকিস্তান আমলেও গাও গেরামে বিদ্যুত থাকত না। বিদ্যুতের অভাবেই মেডাম তখন মেটৃকে খারাপ করছিলেন। স্বৈরাচার বাকশাল স্বাধিন বাংলাদেশেও একই রকম পরিস্থিতি সৃস্টি করিয়া মেডামরে আবার ফেল করাইতে চায়। কারেন্ট নাই, ইন্টারনেট নাই, এখন আমরা প্রশ্ন আগাম ফেসবুক হইতে নামাইব কিরুপে?

শিক্ষা মন্ত্রী নুরুল ইসলাম নাহিদকে সতর্ক করে দিয়ে মারুফ কামাল খান বলেন, উর্দু সহ সকল বিষয়ে এইবার মেডামরে এ প্লাস দিতে হবে। গল্ডেন এ প্লাস দেওয়া না হইলে শিক্ষা মন্ত্রনালয়ের নাম বদলাইয়া দিব সালা ঘোচু।

Leave a Reply

Fill in your details below or click an icon to log in:

WordPress.com Logo

You are commenting using your WordPress.com account. Log Out / Change )

Twitter picture

You are commenting using your Twitter account. Log Out / Change )

Facebook photo

You are commenting using your Facebook account. Log Out / Change )

Google+ photo

You are commenting using your Google+ account. Log Out / Change )

Connecting to %s

%d bloggers like this: