Posts tagged ‘আমিষুল হক’

September 9, 2016

পুটুন এখন ভল্ডামটের নেয় ভয়ংকর: বাফুফে

ক্রীড়া মতিবেদক

কুরবানীর সিজনে লোকাল নন এসি বাসে অনুর্ধ-১৬ ফুটবল দলের বিজয়ী খেলয়াড় মেয়েদিগকে ময়মনসিংহে কলসিন্দুরে ফিরত পাঠানর অভিযগের জবাবে প্রভাবশালী এলাকা কারওয়ানবাজারের উপসর্দার ও আইভরী কোষ্ট ফিরত উপন্যাসিক ‘মা’র্কেজে কারওয়ানবাজার’ কুফামাষ্টার আল্লামা আমিষুল হক পুটুনদার বিরুদ্ধে পাল্টা অভিযগ করেছে বাংলাদেশ ফুটবল ফেডারেশন ওরফে বাফুফে।

আজ নিজ কার্যালয়ে আয়জিত এক সংবাদ সম্মেলনে বাফুফে এ অভিযগ করে।

সংবাদ সম্মেলনে বাফুফে সভাপতি ও সাবেক কৃতি ফুটবলার কাজী সালাউদ্দি বলেন, যা ঘটেছে, সবই কুফামাষ্টার পুটুনদার লীলে। ওতে আমরার কুন হাত নাই।

আবেগঘন কণ্ঠে কাজী সালাউদ্দি বলেন, কয়েক দিন পুর্বে একটি ভয়ানক বেপার আমরার দৃস্টি গচর হয়। কুফামাষ্টার পুটুন ষ্টেডিয়ামে একটি সেলফি ষ্টিক লয়ে আমাদের গর্ব অনুর্ধ ১৬ বালিকা দলের সদস্যদিগের দিকে গুটি গুটি পায়ে আগাইয়া যাইতিছে। আমরা কুন প্রতিরধ গড়ার আগেই সে মেয়েগুলুকে বগলদাবা করিয়া খচাখচ কয়েকটি সেলফি তুলিয়া লিল। আমরা কুন প্রকার বাধা দানের পুর্বেই নির্মম পুটুনদা সেলফিগুলু উহার ফেসবুকে আপ করিয়া দিল।

হুহু করে কেদে উঠে সালাউদ্দি ফুটবলার বলেন, তার পর সব ইতিহাস। কুথা হতে কি হল কিছুই পরিষ্কার মনে নাই। আবছা আবছা শুদু মনে আছে, একটি লোকাল নন এসি বাসে আমরার বাচ্চা বাচ্চা মেয়েগুলুকে মহাখালী বাস ষ্টেন্ড হতে অজানার পানে তুলিয়া দিতিছি। উহারা টেনশনে কান্নাকাটি করিয়া বলতিছে, ছার এত লম্বা জারনি আমরা বাচ্চা কতগুলু মেয়ে পথ ঘাট চিনি না গরমের মদ্যে এসি নাই এখন কি হবে? জবাবে আমি আবেগঘন কণ্ঠে বলতিছি, পুটুনদার সংগে সেলফি উঠিয়া গেছে রে এখন তুদের আল্লাহর হাতে তুলিয়া দেওন ছাড়া করার কিছু নাই। এয়ার দিছেন যিনি রে মন কন্ডিশন করবেন তিনি।

ক্ষোভঘন কণ্ঠে বাফুফে সভাপতি বলেন, পুটুনদার প্রাকৃতিক বিপর্যয়ের নেয় ভয়ংকর হইয়া উঠছে। বন্যা খরা জলচ্ছাস ভুমিকম্প মহামারী সুনামী দাবানলের নেয় কুফামাষ্টার পুটুনও এখন একটি অপ্রতিরধ্য শক্তি। উহার নেয় পিশাচী শক্তি এ যাবত আর একজনের মধ্যেই দেখছি, আর সে হইতিছে ডার্ক লড ভল্ডামট।

আবারও কেদে ফেলে সালাউদ্দি বলেন, ফুটবলে বাচ্চা বাচ্চা মেয়েগুলুকে ডিফেন্স শিখাই। কিন্তু পুটুনদার মকাবিলা করতে হইলে শিখাইতে হইবে ডিফেন্স এগেনষ্ট দি ডার্ক আটস। উহা কে শিখাইবে?

এক প্রশ্নের জবাবে বুক চাপড়ে কেদে উঠে বাফুফে সভাপতি বলেন, বাফুফের সভাপতি নির্বাচনে আমি নরসিংদীর এমপি কামরুল আশরাফ পোটনকে পরাজিত করছি দেখিয়া তুমরা আমায় পুটুনের মকাবিলা করতে বল? কুথায় পোটন আর কুথায় পুটুন?


ডার্ক লড ভল্ডাপুটুন (সবুজ পাঞ্জাবী পাকনা চুল নংরা হাসি)

এদিকে ময়মনসিংহের কলসিন্দুরে গোলরক্ষক তাসলিমার পিতা সবুজ মিয়া স্থানীয় ইস্কুলের ক্রীড়া শিক্ষক জবেদ আলীর হাতে আহত হয়েছেন। এ বেপারে তার সংগে যোগাযোগ করলে তিনি ক্ষোভ প্রকাশ করে বলেন, জবেদ আলী কলসিন্দুরের ফুটবলার মেয়েদের ইস্কুল হতে বিতাড়নের হুমকী দিয়ে আমার উপর চড়াও হয়। আমি প্রতিবাদ করলে সে আমায় মারতে মারতে বলে, কুফামাষ্টার পুটুনদার সংগে তাসলিমার সেলফি উঠিয়া গিয়াছে, এখন হতে তুমায় এরুপ মাইরই খাইতে হইবে।

এদিকে লোকাল বাসে করে মেয়েদের গ্রামে ফিরত পাঠান নিয়ে সারা পৃথীবির বাংলাদেশীদের মধ্যে তীব্র ক্ষোভের সৃস্টি হয়েছে।

এ বেপারে আমিষুল হকের সংগে যোগাযোগ করলে তিনি হাসতে হাসতে বলেন, আর্জেন্টিনা ব্রাজিল গেল তল কলসিন্দুর কয় কত জল। কৃকেট টিমে এমন কুন পেলেয়ার নাই যারে কুফাফাই করি নাই। মেয়ে বলিয়া ফুটবলারগুলুকে ছাড় দিব কেনে? কলসিন্দুরের কলসে ইন্দুর হইয়া তাই কয়েকটি সেলফি তুলিয়ালাইলুম। সেই সাথে প্রত্যেক পেলেয়ার মেয়ের নিকট এক কপি করিয়া ফৃডম’স মাদার বিক্রয় করছি।

ভবিষ্যতে পুটুনদার কুফা হতে কিভাবে ফুটবলারদের রক্ষা করা হবে, এ প্রশ্ন নিয়ে পুনরায় বাফুফের সংগে যোগাযোগ করা হলে মুঠফুনে কাজী সালাউদ্দি কাদতে কাদতে বলেন, সাস্থ্যকে রক্ষা করে লাইপবয়, লাইপবয় যেখানে সাস্থ্য সেখানে, লাইপবয়য়য়য়য়!

 

January 26, 2015

কায়কাউস আমরার তালুই: কারওয়ানবাজার

নিজস্ব মতিবেদক

চলমান রাজনৈতিক সহিংসতার মাঝে এক বেতিক্রম ধর্মী আয়জন করে ঢাকার বোদ্ধা মহলের আলোচনার কেন্দ্রে চলে এসেছে দেশের প্রভাবশালী এলাকা কারওয়ানবাজার।

চলমান রাজনৈতিক সহিংসতাকে পাত্তা না দিয়ে কারওয়ানবাজারের কর্মীদের পক্ষে কারওয়ানবাজারের উপসর্দার ও আইভরী কোষ্ট ফিরত উপন্যাসিক মা’র্কেজে কারওয়ানবাজার কুফামাষ্টার আমিষুল হক পুটুনদা বলেছেন, কায়কাউস আমরার তালুই।

রবিবার সন্ধায় কারওয়ানবাজারের মিলনায়তনে এক বেতিক্রম ধর্মী সাহিত্য অনুষ্ঠানে বিশিষ্ঠ দার্শনিক, কবি, হেকিমী চিকিতসক ও সাংবাদিকদের উপর বোমা মারার দার্শনিক প্রবক্তা ফরহাদ মজহার লুংগির সভাপতিত্বে কায়কাউসকে নিজেদের তালুই ঘোষনা করেন কারওয়ানবাজারের কর্মী বৃন্দ।

সাহিত্য অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে গোলাম আজমের অবৈধ পুত্র, দেশের প্রভাবশালী এলাকা কারওয়ানবাজারের সর্দার ও ১১০% অরাজনৈতিক সংগঠন ‘হেফাজতে মাহমুদুর’ এর প্রতিষ্ঠাতা আমীর মতিচুর রহমান আজমী বলেন, দেশে নানা রকম সমস্যা চলতেছে। দুর্বৃত্তরা বাসে আগুন দিয়া মানুষ মারতেছে। এমতাবস্থায় আমি দ্বের্থহীন কণ্ঠে বলতে চাই, আমি কায়কাউসের ছেলে।


কায়কাউস কারওয়ানবাজারের তালুই

কারওয়ানবাজার সর্দার মতিচুরের এমন ঘোষনায় উপস্থিত বিশিষ্ঠ নাগরিক বৃন্দ ও কারওয়ানবাজারের ছুটা কর্মীরা হতবাক হয়ে যান।

নাচতে নাচতে মতিচুর আজমী কারওয়ানবাজার ফীচারিং জীবনানন্দ দাশ পুরষ্কার প্রাপ্ত কবি জামিলের কবিতা আবৃত্তি করে বলেন, আমি কায়কাউসের ছেলে। আমি বেড়াই হেসে খেলে।

মতিচুর সর্দারের অকপট স্বিকারুক্তিতে দর্শক বৃন্দ তুমুল করতালিতে ফেটে পড়েন।

মতিচুর সর্দার আপন পুত্র সাশাচুরকে মঞ্চে ডেকে নিয়ে তাকেও কায়কাউসের ছেলে হিসাবে পরিচয় করিয়ে দিয়ে কবি জামিলের আরেকটি কবিতা আবৃত্তি করে বলেন, প্রতিটি পুরুষ তার পুত্রের দুধভাই। কাজেই সাশাচুর আমার দুধভাই ও আমি গোলাম আজমের দুধভাই। আমরা সবাই কায়কাউসের ছেলে।

হতবাক কারওয়ানবাজারের কর্মীদের প্রতি চেলেঞ্জ ছুড়ে দিয়ে মতিচুর রহমান আজমী আবেগঘন কণ্ঠে প্রশ্ন করেন, আমি কায়কাউসের ছেলে হলে তুমরা কায়কাউসের কি?

কারওয়ানবাজারের কর্মীদের পক্ষ হতে এ সময় উপসর্দার আমিষুল হক পুটুনদা এ জটিল প্রশ্নের সমাধান দিয়ে বলেন, কায়কাউস আমরার তালুই।

উত্তর সঠিক হয়েছে জানিয়ে কায়কাউসের ছেলে মতিচুর রহমান বলেন, আমি কায়কাউসের ছেলে আর তুমরা সবাই আমার চুদির ভাই। অতএব কায়কাউস তুমরার তালুই। ঠিক কি না?

সভাপতির বক্তব্যে ফরহাদ মজহার লুংগি বলেন, কায়কাউসের সংগে আমাদের সবার সম্পর্ক এখন পরিস্কার। আমরা কায়কাউসের সুত্রে সবাই সবার আত্মীয়। কাল আর ধল বাইরে কেবল, ভিতরে সবার সমান রাঙ্গা।

November 26, 2014

ভিনা মালিকের ২৬ বতসরের কারাদণ্ড, আত্মহত্যার চেস্টা করলেন মতিচুর

পাকিস্তান মতিনিধি

পাকিস্তানের জিও টিভির বিখ্যেত প্রভাতী অনুষ্ঠান ‘উঠ জাগ পাকিস্তান’-এ কাওয়ালী সংগীতের পাশাপাশি নৃত্য পরিবেশনের মাধ্যমে পাকিস্তানের আহলে সুন্নত ওয়াল জামাতের গিলগিট-বালতিস্তান শাখার ভাইস প্রেসিডেন্ট হেমায়েতুল্লাহ খানের ধর্মানুভুতিতে তিব্র আঘাত হানার অপরাধে পাকিস্তানের বিখ্যেত অভিনেত্রী ও কারওয়ানবাজারের হট ফেবারিট ভিনা মালিককে ২৬ বতসরের কারাদণ্ড দিয়েছেন গিলগিটের সন্ত্রাসবিরোধী আদালতের বিচারক রাজা শাহবাজ।

একই সাথে ভিনা মালিকের নেয় একটি পিশাচীনীকে শাদী করার অপরাধে ভিনা মালিকের স্বামী আসাদ মালিক, ভিনা মালিকের কাওয়ালী ও নৃত্য সঞ্চালনা করার অপরাধে উঠ জাগ পাকিস্তানের উপস্থাপিকা শায়েস্তা লদী ও এই অনুষ্ঠান প্রচারের অপরাধে জিও টিভির আমীর মির্জা শাকিলুর রহমান আলমগীরকেও ভিনা মালিকের সংগে কারাগারে একই কক্ষে ২৬ বতসর কারাভোগের দণ্ড দেন গিলগিটের হাকিম রাজা শাহবাজ।

এ রায় ঘোষনার পর ভিনা মালিক ও শায়েস্তা লদী অজ্ঞান হয়ে পড়েন। রায় শোনার পর ভিনা মালিকের মালিক আসাদ মালিক ও জিও টিভির মালিক মির্জা শাকিলুর রহমান আলমগীর পরস্পরের সংগে কোলাকুলি করেন ও নিজেদের মধ্যে এক রুপির একটি কয়েন নিয়ে টস করেন।


ধর্মানুভুতির শত্রু ভিনা মালিক

রায় ঘোষনার পর মামলার বাদী হেমায়েতুল্লাহ খান অসন্তুষ্টি প্রকাশ করে বলেন, আদালত মেরি জখম ধর্মানুভুতির প্রতি কুন সুবিচার নেহি কিয়া। ভিনা মালিকের নেয় একটি গনগনা গরম যুবতীকে ২৬ বতসরের জন্যি কারাগারে ঢুকাই দিলে মির্জা শাকিলুর রহমান আলমগীর বেতীত আর কারও কুন উপকার নেহি হগা।

আবেগঘন কণ্ঠে হেমায়েতুল্লাহ খান বলেন, দিনের পর দিন আমি ফজরের নামাজ আদায় করিয়া টিভি খুলিয়া জিও টিভিতে উঠ জাগ পাকিস্তান অবলোকন কিয়া। সাত সকালে ভিনা মালিকের কার্যকলাপ দেখলে যে কুন পুরুষের পাকিস্তান উঠতে ও জাগতে বাধ্য। আমার পাকিস্তানটিও তার বেতিক্রম নেহি। কিন্তু কাওয়ালীর সংগে এই পিশাচীনীর পাকিস্তান জাগান নৃত্য দেখার পর সেইদিন আমি আমার ধর্মানুভুতিতে চরম আঘাত পাই। এর ক্ষতি পুরন হিসাবে আদালত এই ভিনা মালিককে গনিমতের মাল ঘোষনা করে আমার বাড়িতে পাঠাইতে পারত। কিন্তু ইনসাফ এই দুনিয়া হতে উঠিয়া গেছে।


ধর্মানুভুতির শত্রু শায়েস্তা লদী

এদিকে কারওয়ানবাজারে ভিনা মালিকের কারাদণ্ডের খবর এসে পৌছালে সেখানে এক হৃদয় বিদারক পরিস্থিতির সৃস্টি হয়। কারওয়ানবাজারের সর্দার ও ১১০% অরাজনৈতিক সংগঠন ‘হেফাজতে মাহমুদুর’-এর প্রতিষ্ঠাতা আমীর আল্লামা মতিচুর রহমান আজমী এ সংবাদ শুনে কান্নায় ভেংগে পড়েন। এক পর্যায়ে তিনি ফৃজে সংরক্ষিত শফী হুগুরের পানিপড়ার বোতল এক ঢোকে সম্পুর্ন পান করে আত্মহত্যার চেস্টা করেন। এ সময় কারওয়ানবাজারের ছুটা কর্মীরা তাকে ধরাধরি করে স্কয়ার হাসপাতালে নিয়ে যায়।

স্কয়ার হাসপাতালের গেস্ট্র এন্টেরলজি বিভাগের প্রধান ডাঃ রফিকুল ইসলাম জোয়ারদার মতিকণ্ঠকে নাম প্রকাশ না করার শর্তে বলেন, বর্তমানে মতিচুরকে নিবিড় পরিচর্যা কেন্দ্রে রাখা হয়েছে। ৭২ ঘণ্টা পার না হলে কিছুই নিশ্চিত ভাবে বলা যাচ্ছে না।

মতিচুরের অনুপস্থিতিতে কারওয়ানবাজারের উপসর্দার ও আইভরী কোষ্ট ফিরত উপন্যাসিক মা’র্কেজে কারওয়ানবাজার কুফামাষ্টার আমিষুল হক পুটুনদা জানিয়েছেন, ধর্মানুভুতিতে আঘাতের বানিজ্যে লতিফ সিদ্দিকীর পরিবর্তে প্রান প্রিয় ভিনা মালিক কারাদণ্ড হওয়ায় কারওয়ানবাজার সর্দার একটি বিশেষ অনুভুতিতে আঘাত পেয়েছেন। আগামী ২৬ বতসর ভিনা মালিকের নতুন কোন ছবি ও ভিডিও দেখতে না পাওয়ার বেদনায় তিনি উচ্চ শক্তির পানিপড়া পান করে আত্মহত্যার চেস্টা করেন।

হুহু করে কেদে উঠে আমিষুল বলেন, মাসের পর মাস সংগ্রামের পর লতিফ সিদ্দিকীরে জেলে ঢুকাইলাম। অতছ চিপা দিয়া আমরার ভিনা মালিকরে কারাদণ্ড দিয়া দিল। এখন আমি সকাল বেলা আমার পাকিস্তানকে উঠাব কেমন করিয়া, জাগাবই বা কেমন করিয়া? সারাদিন ঝুলন্ত পাকিস্তান নিয়া কি উপসর্দারের জীবন যাপন করা সম্ভব?

এদিকে ধর্মানুভুতিতে আঘাতের দায়ে চাচাত ভাই মির্জা শাকিলুর রহমান আলমগীরের কারাদণ্ড হওয়ায় বৃহত্তর জামায়াতে ইসলামীর বিএনপি শাখার ভাঁড়প্রাপ্ত নায়েবে আমীর, জাতীয়তাবাদী শক্তির ‘কমপ্লান বয়’, লনডনে পলাতক চিকিতসাধীন আওলাদে আমীর বড় গুণ্ডে কতৃক ‘হাইড এন্ড সিক’ গালিতে ভুষিত ও ঈদুল কতলের টেলেন্ট হান্ট প্রতিযোগীতায় ‘ফ্লেয়ার এন্ড লাবলি’ খেতাবে সমাদৃত মির্জা বাড়ির বড় গৌরব আল্লামা মির্জা ফখরুল ইসলাম আগুনগীর ওরফে ফখা ইবনে চখা বিব্রত পরিস্থিতিতে পড়েছেন বলে দলীয় সুত্রে জানা যায়। এ বেপারে তার মুঠফুনে যোগাযোগ করা হলে ফোনটি বন্ধ পাওয়া যায়।

November 16, 2014

কুফামাষ্টার পুটুন আমায় সেলফী নির্যাতন করেছে: সাকিব

ক্রীড়া মতিবেদক

দেশের প্রভাবশালী এলাকা কারওয়ানবাজারের উপসর্দার ও আইভরী কোষ্ট ফিরত উপন্যাসিক ‘মা’র্কেজে কারওয়ানবাজার’ আল্লামা আমিষুল হক পুটুনদার বিরুদ্ধে ‘সেলফী নির্যাতনের’ অভিযোগ এনে বাংলাদেশের সর্বাপেক্ষা বড় কৃকেটার বাংলাদেশের জান সাকিব আল হাসান বলেছেন, কুফামাষ্টার পুটুন আমায় সেলফী নির্যাতন করেছে। আমি এর বিচার চাই।

আজ জিম্বাবুয়ের সংগে তিন টেষ্ট মেচের সিরিজের সর্বশেষ মেচের সর্বশেষ দিনে জিম্বাবুয়েকে বাংলা ওয়াশ করার পর ‘মেন অফ দি সিরিজ’ পুরস্কার গ্রহনের পর সাংবাদিকদের সামনে বক্তব্য দিতে গিয়ে কান্নায় ভেংগে পড়েন এই বিশ্ব সেরা অল রাউন্ডার।

বাংলাদেশের জান বলেন, আপনারা জানেন, গত টেষ্ট মেচে আমি সেনচুরী করছি, আবার দশখানি উইকেটও লইছি। পৃথীবিতে এই কাম আমার আগে করছে আর মাত্র দুই জন। বাংলাদেশ হতে আমিই এই কাম প্রথম করলাম। পেভিলিয়নে গিয়া জিরানর সময় আমার কুচ হাতুড়ি সিংহী আসিয়া বলিল, সাক্কু তুমি এই কাম যদি আরেকবার করতে পার, টেষ্টের ইতিহাসে তুমিই হইবা সর্বাপেক্ষা বড় কৃকেটার। জিম্বাবুয়ে একটি দুবলা দল, সেনচুরী আর দশ উইকেট তুমার জন্যি কুন বেপারই নহে।


ঘাতক সেলফী

আবেগঘন কণ্ঠে সাকিব বলেন, খুলনায় রেকড গড়িবার পর চট্টগ্রামে আসার আগে ঢাকা ফিরলাম। তখন কারওয়ানবাজারের সর্দার কুফায়ে আজম আমিষুল হক পুটুনদা আসিয়া আমায় বলিল, সাকিব সাকিব সাকিব, আমার লগে সেলফী তুললে বাকী জীবন কৃতজ্ঞ হইয়া থাকিব। আমি হাসতে হাসতে উহাকে বললাম, না পুটুনদা, আপুনার লগে সেলফী আর নহে। এর আগে একবার আপুনার লগে সেলফী তুলিয়া পাপনের হাতে চাপন খাইছি। সেলফী তুলিয়া আপুনি ব্রাজিল ফুটবল দলের সানডে মানডে কলজ করিয়া দিছেন। হযরত ইউনূসের কবরও আপুনার সেলফী নির্যাতন হইতে রক্ষা পায় নাই। আপউনার নেয় কুফামাষ্টারের সংগে আর কুন সেলফী নহে। আই হেভ ইনাফ অফ দিশ শিট। তখন পুটুনদা কানতে কানতে আমার বক্ষে মুখ গুজিয়া বলিল, পাষান একটা।

হুহু করে কেদে উঠে সাকিব বলেন, কুফামাষ্টারের হাত হইতে রক্ষা পাওয়ার জন্য আমি তার কুফা মেজিকের ফান্দে পা দিয়া একটি সেলফী তুলিতে বাধ্য হই। তারপর গেলাম চট্টগ্রামে টেষ্ট খেলতে। কি আর বলব ভাইসব, দুই ইনিংসে একবার করিলাম একাত্তর, আরেকবার করিলাম সতার। পাইছি মাত্র একখানি উইকেট।

অশ্রু মুছে একটি ব্লেকবুডে অংক করে সাকিব বলেন,

সাকিব + জিম্বাবুয়ে = সেনচুরী + দশ উইকেট
সাকিব + কুফামাষ্টার পুটুন + জিম্বাবুয়ে = ন সেনচুরী + এক উইকেট
কুফামাষ্টার পুটুন = একটি কুফা ঘোচু

ভবিষ্যতে আর কোন দিন আমিষুল হক পুটুনদার সংগে সেলফী না তুলার অংগীকার করে বাংলাদেশের জান বলেন, এই বেক্তিটি বাংলাদেশ কৃকেট দলকে কুফা মেজিক দিয়া ধ্বংশ করতে চায়। সরকারের উচিত এই বেপারে বেবস্থা গ্রহন করা। কৃকেট খেলা চলাকালে উহাকে কাশিমপুরের কনডম সেলে নিয়া আটকাইয়া রাখা হউক।

এ বেপারে আমিষুল হক পুটুনদার সংগে যোগাযোগ করা হলে তিনি মুঠফুনে হাসতে হাসতে মতিবেদককে বলেন, উপযুক্ত হাদিয়া দিলে আমি সেলফী তুলা বন্দ রাখতে পারি।

কেন তিনি ক্রীড়া জগতের বিখ্যেত বেক্তিদের সংগে নেক্কার জনক সেলফী তুলেন, এ প্রশ্নের জবাবে পুটুনদা হাসতে হাসতে বলেন, ইট ইজ এ যৌন থিং।

%d bloggers like this: