Posts tagged ‘ক্রিকেট’

February 22, 2015

মেডামের দুয়ায় সমস্যা আছে: মিছবাউল

ক্রীড়া মতিবেদক

চলমান বিশ্বকাপ কৃকেটে পাকিস্তানের উপর্যুপরি শোচনীয় পরাজয়ের পিছনে বৃহত্তর জামায়াতে ইসলামীর বিএনপি শাখার মহিলা আমীর ও জাতীয়তাবাদী শক্তির মালিক আপোষহীন দেশনেত্রী মাদারে গনতন্ত্র বেগম খালেদা জিয়া জেএসসির দুয়া কালামে সমস্যাকে দায়ী করে পাকিস্তান কৃকেট দলের আমীর মিছবাউল হক বলেছেন, মেডামের দুয়ায় সমস্যা আছে।

আজ বৃসবেনের একটি স্থানীয় কৃকেট মাঠে জিম্বাবুয়ের সংগে পরবর্তী মেচের পুর্বে বেটিং, বলিং, ফিলডিং ও মেচ ফিকসিং অনুশীলনের পর আয়জিত এক সংবাদ সম্মেলনে মাদারে গনতন্ত্রের দুয়ায় সমস্যার কথা তুলে ধরেন মিছবাউল।

সংবাদ সম্মেলনে মিছবাউল হক বলেন, আমরা ইতি পুর্বে পত্র পতৃকা পাঠ করিয়া জানতে পারছিলাম যে মাদারে গনতন্ত্র পাকিস্তান কৃকেট দলের জন্যি রোজা রাখিয়া ছিলেন। কিন্তু আমরা মালাউন ইনডিয়ার নিকট নির্মম ভাবে পরাজিত হওয়ার পর তিনি রোজা ভংগ করেন।

আবেগঘন কণ্ঠে মিছবাউল কৃকেটার বলেন, ওয়েষ্ট ইন্ডিজের সংগে খেলতে নামিয়া আমরা মেডামের নায়েবে সাহাফা মারুফ কামাল খানের এছেমেছ পাইলাম যে তিনি এছেছছি পরীক্ষার পড়ালিখা বাদ দিয়া আমরার জন্যি একুশে ফেব্রুয়ারী মধ্য রাত্রে দুয়া মহাফিলের আয়জন করছেন। মেডামের দুয়ার উপর ভরসা করিয়া আমরা খেলতে নামলাম। কিন্তু সে দুয়ার প্রতিক্রিয়ায় আমাদিগের জয় লাভ ত দুরের কথা, পাইজামা পুটুতে রাখাই কঠিন হইয়া গেল। ১ রানে ৪ উইকেট হারানির বিশ্ব রেকড লইয়া ওয়েষ্ট ইন্ডিজের মত একটি মালাউন দলের হাতে নির্মম পুটুমারা খাইয়া আমরা পেভিলনে ফিরত আইলাম।


ইনডিয়া জিতে গেছে

হুহু করে কেদে উঠে মিছবাউল বলেন, মেডামের দুয়ায় যদি কুন কাম হইত, তাহলে আজ সাউথ আফৃকার সংগে ইনডিয়া শত শত রানের বেবধানে জয় লাভ করতে পারত? পারত না। এতে কি প্রমান হয়? প্রমান হয় যে মেডামের দুয়ায় সমস্যা আছে।

অবিলম্বে বাংলাদেশের অভ্যন্তরে স্বাধীন রাস্ট্র হাটহাজারিস্তানের খলিফা ও হেফাজতে ইসলামের আমীর উপমহাদেশের সর্বাপেক্ষা হিট আলেম আল্লামা রাজ শাহ আহমদ শফীর তত্তাবধানে মাদারে গনতন্ত্রকে দুয়া কালাম প্রশিক্ষনের বেবস্থা করার জন্য বাংলাদেশের ক্ষমতাসীন বাকশাল সরকারের প্রতি আহোভান জানিয়ে মিছবাউল হক বলেন, মেডামের ভুল দুয়ার কারনে আমাদের মেচ ফিকসিং বেবসায় চরম অবক্ষয় দেখা দিছে। মাদারে গনতন্ত্র অবিলম্বে সঠিক ও কার্যকরী দুয়া শিখিয়া দুয়া মহাফিলে না বসলে আমরা বৃসবেন প্রেস ক্লাবের সামনে অনশন করতে বাধ্য হইব।


দুয়ার টেবিলে নারী পুরুষের অবাধ মিলামিশা

পতৃকায় প্রকাশিত মেডামের দুয়া মহাফিলের ছবি দেখিয়ে মিছবাউল উপস্থিত সাংবাদিকগনের কাছে ক্ষুব্ধ কণ্ঠে প্রশ্ন করেন, দুয়ার টেবিলে নারী পুরুষের অবাধ মিলামিশা হলে সে দুয়ায় কি কখনও কাম হবে? এ কেমন মহাফিল? আল্লামা রাজের ১৩ দফার ইতনা অবমাননা কিউ হতা হায়?

এদিকে মিছবাউলের অভিযোগের জবাবে পাল্টা বিবৃতীতে মাদারে গনতন্ত্রের নায়েবে সাহাফা মারুফ কামাল খান বলেন, আমি পাকিস্তানের কৃকেট দলের আমীর শ্রীযুক্ত মিছবাউল হককে মেডামের পক্ষ হতে পরিস্কার জানাইয়া দিতে চাই যে একুশে ফেব্রুয়ারী আমরা পাকিস্তান কৃকেট দল নহে, বরং ভাষা শহীদ গোলাম আজম, ভাষা শহীদ ইউছুপ, ভাষা শহীদ আবদুল আলীম ও ভাষা শহীদ আবদুল কাদের মোল্লা ও হবু ভাষা শহীদ কামারুজ্জামানের জন্যি দুয়া মহাফিল বসাইয়াছিলাম। জিম্বাবুয়ের সংগে পাকিস্তানের মেচের পুর্বে মেডাম খাস দিলে ইস্পিশাল দুয়ায় বসবেন ইনশা আল্লাহ। আপুনি টেকাটুকা খাইয়া জিম্বাবুয়ের সংগে পরাজয়ের রাহে পা না বাড়াইলে পাকিস্তানের ইজ্জত বাচবে, মেডামের দুয়ার বদনামও কমবে। লাইনে আসুন।

হাসতে হাসতে মারুফ নায়েব বলেন, এ দুয়া সে দুয়া নহে।

 

February 19, 2015

আফৃদী আমায় উতপল শুভ্র বলেছে: লুডেন

ক্রীড়া মতিবেদক

পাকিস্তান কৃকেট দলের অল রাউন্ডার বুম বুম শহীদ আফৃদীর বিরুদ্ধে যৌন নির্যাতনের অভিযোগ এনে পাকিস্তান কৃকেট দলের ফিলডিং কুচ গ্রেন্ট লুডেন বলেছেন, আমি আর পাকিস্তান কৃকেট দলে চাকরী করব না। উহারা শুদু মারতে চায়।

আজ টুইটারে এক বার্তায় এ অভিযোগ করে পদতেগের হুমকি দেন দক্ষিন আফৃকার লোক লুডেন।

এ বেপারে লুডেনের সংগে যোগাযোগ করা হলে তিনি মতিকণ্ঠকে বলেন, দুটু পয়সার জন্যি পাকিস্তানের নেয় একটি মাদারচুদ দেশে গিয়াছিলুম। কৃকেটারগুলুকে ফিলডিং শিখানই আমার চাকরী। কিন্তু বললে বিশ্বাস করবেন না ভাইছাব, উহারা একেকটি পুরস্কার প্রাপ্ত মাদারচুদ। যদি মাদারচুদামির উপর কুন বিশ্বকাপ থাকত, পাকিস্তান একাই চেম্পিয়ন ও রানাসাপ হইত।


আফৃদীর হাতে যৌন নির্যাতিত লুডেন

আবেগঘন কণ্ঠে গ্রেন্ট লুডেন বলে, বিশ্বকাপে ভারতের নিকট উপর্যুপরি পুটুমারা খাওয়ার পর আমি কৃকেটারগুলুকে মাঠে ডাকিয়া বললুম, আইস বেরাদারগন, এখন আমরা কিছু ফিলডিং পেকটিস করি, যাতে অন্য দলগুলু আমাদের মারা খাওয়া পুটুতে লবন রাখিয়া বরই ভক্ষন করতে না পারে। তখন কুথা হতে এই বুম বুমের বাচ্চা শহীদ আফৃদী তার দুই বেয়াদব বন্দু শাহজাদ ও উমর আকমলকে সংগে লইয়া আমার নিকট আসিয়া চক্ষু রাংগাইয়া বলল, আরে কৌন হামারা পুটু মে লবন রাখিয়া বরই খায়েংগে? বিশ্বকাপ মে সব টিম ক ইনডিয়া সমঝতে হে তু? সালা উতপল শুভ্র।

হুহু করে মুঠফুনে কেদে উঠে লুডেন বলেন, আমি এই তিন বেয়াদবকে বুঝাইয়া বলতে গেলাম যে দেখ, ইনডিয়ার কাছে পুটুমারা খাইছ, খাইছ। তাই বলিয়া এখন রিলেক্স করার কুন কারন নাই। যে কুন সময় যে কুন দল তুমাদিগকে পুনরায় পুটু মারিয়া দিতে পারে। কে জানে হয়ত এই উমর আকমল আর শাহজাদই মেচ ফিকসিং করিয়া বরইয়ের জন্য লবনের বেবস্থা করিয়া দিবে। তখন খানকির পুলা বুম বুম আমায় বলে কি, আরে তু ফিলডিং কুচ হে, বেটিং কে বেপার মে ইতনা মাথাবেথা কিউ করতে হে সালা উতপল শুভ্র?

কাদতে কাদতে লুডেন বলেন, পর পর দুইবার তারা আমায় উতপল শুভ্র বলিয়া গালি দিল। ইহা পরিষ্কার যৌন নির্যাতন। আমি পিসিবি ও আইসিসি উভয়ের কাছে বিচার দিব। ফর্সা হওয়ার কারনে উহারা আমায় কি যেন করতে চায়।

July 7, 2014

ছয় মাস নিরিবিলি চুলকাব: সাকিব

ক্রীড়া মতিবেদক

বাংলাদেশ কৃকেট বোর্ড বাংলাদেশের সর্বাপেক্ষা ভাল কৃকেটার সাকিব আল হাসানের উপর ৬ মাসের নিষেধাজ্ঞা জারি করায় আনন্দ প্রকাশ করে সাকিব আল হাসান বলেছেন, কৃকেট বুডকে ধন্যবাদ। এই ছয় মাস নিরিবিলি চুলকাব।

আজ এক সংবাদ সম্মেলনে সাকিব আল হাসান ছয় মাস নিরিবিলি চুলকানর পরিকল্পনা বেক্ত করেন।

সংবাদ সম্মেলনে হাস্যজ্জল সাকিব বলেন, কৃকেট খেলতে খেলতে শরিলের গাটে গাটে শুদু বেথা বেদনা। এই ছয় মাস নিষেধাজ্ঞা পাইয়া ভাল হইছে। নিরিবিলি চুলকাব। অনেকদিন কুথাও বেড়াইতে যাই না। এই ছয় মাস বেড়াব। খাব দাব গান গাব।

১৮ মাসের জন্য অনাপত্তিপত্র দিতে বিসিবি আপত্তি জানানয় ক্ষোভ প্রকাশ করে সাকিব বলেন, বিদেশে গিয়া লীগে খেলে দুটু পয়সা কামাই, তাই বিসিবির চুখ টাটায়। তারা আমায় এই ১৮ মাস গরিব বানাইয়া রাখতে চায়।

বিজ্ঞাপন চিত্রে অভিনয়ের জন্য বিসিবির অনুমদনের নিয়ম জারী করায় হতাশায় ভেংগে পড়ে সাকিব বলেন, বিজ্ঞাপোন মারিয়াই ত দেশে দুটু খেয়ে পরে বাচতে পারি। বন্দুবান্দবের সংগে একদিন ভাল কুন রেস্তরায় খাইতে গেলে ২০-২৫ হাজার টেকা খরচ হয়ে যায়। বিজ্ঞাপোন না মারিলে এই ১৮ মাস আমায় বন্দুবান্দব নিয়া ভাতের হটেলে খাইতে হবে।


৬ মাস সমানে খাউজাব, কত কেমেরা পাঠাবি পাঠা

কতৃপক্ষ তাকে বল পুর্বক ফরমালিন খাওয়াতে চায়, এমন আশংকা বেক্ত করে সুপার ষ্টার সাকিব বলেন, ওয়েষ্ট ইন্ডিজে এখন আম ও আনারসের সিজন চলতেছে। দেশে ত ফরমালিনের কারনে আম-লিচুতে হাত দিতে পারি না। পত্নী বলল, চল জেমাইকা যাই। সীবীচে আম খাইতে খাইতে ইদুল ফিতর যাপন করিব। আমি বললাম, এখন জেমাইকা গেলে আমাদিগের কসমেটিক বিজনেশ দেখাশুনা করবে কে? পত্নী বলল, আগে ফরমালিন মুক্ত আম, পরে বিজনেশ। তখন দুজনে লনডন গেলাম। লনডনে পাড়া দিয়াই শুনি পাপন ছার আর হাতুড়াসিংহী আমার উপর বিলা। আমি নাকি উপযুক্ত ফরমালিটি না করিয়াই দেশ তেগ করিয়াছি।

শৃলংকার কোচ হাতুড়াসিংহীর প্রতি ক্ষোভ প্রকাশ করে সাকিব আল হাসান বলেন, আমাদের জাতীয় দলের যে অসুখ, তা কুন হাতুড়ার পক্ষে সারান সম্ভব নহে। কত বড় বেকুব হলে সে অষ্টেলিয়ার আপেল আংগুরের আরাম পরিতেগ করিয়া এই ফরমালিনের দেশে আসে? এই হাতুড়া একটি অভিশাপ। আমার ধারনা সে ফরমালিটির নেশার পাশাপাশি ফরমালিনের নেশাও করে।

এদিকে এক পৃথক সংবাদ সম্মেলনে সাকিব আল হাসানকে বাবুনাগরিক শক্তির পক্ষ থেকে স্বাগতম জানিয়ে সদ্য গঠিত রাজনৈতিক দল বাবুনাগরিক শক্তির প্রতিষ্ঠাতা আমীর, বাংলাদেশের একমাত্র নোবেল বিজয়ী অর্থনীতীবীদ ও গ্রামীন বেংকের বিতাড়িত মালিক ‘অর্থনীতীর সানি লিওনি’ কায়েদে নোবেল ড. মুহম্মদ ইউনূস বাবুনগরী বলেছেন, বাকশালের হাতে নির্যাতিত হওয়ার জন্য সাকিব আল হাসানকে অভিনন্দন। তুমি আর আমি চাচাত মামাত খালাত ভাই না হইলেও বেথাত ভাই। একই পক্ষ আমাদিগকে বেথা দিয়াছে। তাই আমার দুয়ার তুমার জন্য খুলা। যদি তুমি চাও, ইস্পেনের রানী আর বেলজিয়ামের রাজা তুমার হয়ে পাপন ঘোচুর বিরুদ্ধে বিবৃতী দিবে।

হাসতে হাসতে ইউনূস বলেন, উপযুক্ত হাদিয়া দিলে সপ্তম নৌবহর আমদানী করিয়া পাপনকে চাপন দেওয়া হবে।

June 17, 2014

গালি দেওনের আগে এক ঝুড়ি কমলা পাঠান: সাকিব

ক্রীড়া মতিবেদক

জয়লাভের জন্য দুর্বল ভারতের বিরুদ্ধে ১০৬ রান করার লক্ষ নিয়ে মাঠে নেমে হেরে গেছে টাইগাররা।

আর এ পরাজয়ের জন্য আবারও ফরমালিনকে দায়ী করেছেন বাংলাদেশের কৃকেট সুপারষ্টার সাকিব আল হাসান।

হাস্যজ্জল মুখে মিডিয়ার মুখমুখি হয়ে বাংলার টাইগার সাকিব বলেন, এতগুলু বছর ফরমালিন খাওয়ার কুফল আজ হাতে নাতে পাইলেন।

জনগনকে গালি দিতে মানা করে সাকিব বলেন, বয়স হইছে, এখন আর গালাগালি ভাল লাগে না। গালি দেওনের আগে এক ঝুড়ি কমলা পাঠান। ফরমালিন মুক্ত কমলা খাইলে হয়ত ৪ রানের জায়গায় ৮ রান করলেও করতে পারি।

ওপেনার তামিম ও এনামুলের প্রতি ইংগিত করে সাকিব বলেন, একা আমায় দুষ দিলে হবে?


জাতীয় দলের পিছে খাটনি না দিয়া কেকেয়ারের পিছে খাটনি দেওয়া ভাল

অভিষেক মেচে ২৮ রানের বিনিময়ে ৫ উইকেট নেওয়া পেসার তাসকিনকে তিরস্কার করে সাকিব বলেন, ফরমালিন খাইয়া এত ভাল বলিং করা ঠিক হয় নাই।

ভবিষ্যতে ফরমালিন মুক্ত কমলা পাঠান না হলে এই রকম পারফরমেন্সের হুমকি দিয়ে সাকিব বলেন, ইনডিয়াতে ফরমালিন নাই। শাহারুখ খান নিজের হাতে কমলা চিপিয়া জুস বানাইয়া আমায় ও আমার পত্নীকে খাওয়ায়। সেই কারনেই কেকেয়ারে খেলিয়া ফাটাইয়া ফেলি।

বিসিবি কতৃপক্ষকে শাহরুখ খানের নিকট হতে কমলা জুস করার মেশিনের মডেল ও কায়দা সংগ্রহ করার আহোভান জানিয়ে সাকিব বলেন, লাইনে আসুন।

%d bloggers like this: