Archive for May, 2012

May 26, 2012

শেখ ফাহিমের সাথে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রীর মন কষাকষি

বিশেষ মতিবেদক

সাংসদ শেখ ফজলে নূর তাপসের ছোট ভাই শেখ ফাহিম ভারতীয় বানিজ্যিক গোষ্ঠী সাহারা গ্রুপের বাংলাদেশ শাখার আমীর মনোনীত হওয়ায় তার সাথে বিবাদে জড়িয়ে পড়েছেন স্বরাষ্ট্র মন্ত্রী এডভোকেট সাহারা খাতুন।

আজ এক সংবাদ সম্মেলনে এ কথা প্রকাশ করেন সাহারা খাতুন।

সাহারা খাতুন অভিমান করে বলেন, আমার নাম সাহারা। অথচ সাহারা গ্রুপের মালিক সুব্রত রায় ঢাকায় এসে তার গ্রুপের বাংলাদেশ শাখার আমীর মনোনীত করেছেন শেখ ফাহিমকে। এ অন্যায় মেনে নেওয়া যায় না।

স্বরাষ্ট্র মন্ত্রী বলেন, আমি মন্ত্রী ও সাংসদ। আর শেখ ফাহিম সাংসদের ছোট ভাই। আমার নামে সাহারা আছে, তার নামে সাহারা নাই। আমি বড়, সে ছোট। সব বিচারেই সে আমার কাছে ফালতু। অথচ সুব্রত রায় তাকেই সাহারা গ্রুপের বাংলাদেশ শাখার আমীর বানাল।

সাহারা খাতুন আবেগঘন কণ্ঠে বলেন, আল্লাহ এই পাপ সহ্য করবেন না। তিনি সুব্রত রায় ও শেখ ফাহিম, দুইজনকেই গুনাহ দিবেন।

সাহারা খাতুন সুব্রত রায়কে উদ্দেশ করে বলেন, এখনও সময় আছে। লাইনে আসুন।

May 25, 2012

আল্লাহর বিচারে প্রমানিত হয়েছে আল্লাহ জাতীয় পার্টির সমর্থক: এরশাদ

বিশেষ মতিবেদক

জাতীয় পার্টির চেয়ারমেন ও সাবেক স্বৈরাচারী রাষ্ট্রপতি পল্লীবন্ধু হুসেইন মুহম্মদ এরশাদ বলেছেন, আল্লাহর বিচার হয়েছে। এই বিচারের মাধ্যমে আল্লাহ প্রমান করেছেন যে তিনি জাতীয় পার্টির সমর্থক।

আজ রাজধানীর এক হোটেলে আয়োজিত এক অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে এ দাবী করেন এরশাদ।

পল্লীবন্ধু বলেন, খালেদা জিয়া আজ বলছেন, তাকে বাড়ি থেকে সরকারের ষড়যন্ত্রে এক কাপড়ে বের করে দেয়া হয়েছে। এ নিয়ে তিনি কান্নাকাটি করেন, ভাংচুর করেন, মানুষের জানমালের ক্ষতি করেন। অথচ আমাকে যখন এক কাপড়ে বাড়ি থেকে বের করে দেয়া হয়েছিল, তিনি তখন কিছু করেননি।

এরশাদ আবেগঘন কণ্ঠে বলেন, আমাকে আর বাড়ি থেকে আমার কাপড়গুলি সংগ্রহ করার সুযোগ দেয়া হয়নি। আমি সেই একটি কাপড় এখনও পরিধান করে চলছি। রাতে আমি কাপড়টি ধুয়ে ফেনের নিচে দড়ি টাঙ্গিয়ে শুকাতে দেই। যেদিন বিদ্যুৎ থাকে না, আর বাতাসের আদ্রতা বেশী থাকে, সেদিন আমার একমাত্র কাপড়টি সময় মত শুকায় না। সেদিন আমি আর বাড়ির বাইরে যেতে পারি না। খবরের কাগজ পরিধান করে ঘরে বসে বসে ফু দিয়ে ফু দিয়ে কাপড়টি শুকানর চেষ্টা করি। এ কারনেই আমি সরকারকে হুশিয়ারী জানাচ্ছি, বিদ্যুৎ সমস্যার সমাধান সবার আগে করতে হবে। অন্ন চাই, বস্ত্র চাই, বস্ত্র শুকানর বিদ্যুৎ চাই। বিদ্যুৎ নিয়ে আর কোন কৈফিয়ত জনগন শুনতে চায় না।

এরশাদ অশ্রুভরা চোখে বলেন, আমি রওশনকে অনেকবার বলেছি, তার একটি পায়জামা আমাকে ধার দিতে। সে দেয়নি। তাই রাগ করে আমি বিদিশাকে বিবাহ করলাম। বললাম, ওগো তোমার একটি পায়জামা আমাকে দিও, আমার কাপড় ধুয়ে ফেনের নিচে শুকাতে দিয়েছি। বিদিশাও দেয়নি। তাই আমি রাগ করে বিদিশাকে তেগ করেছি।

এরশাদ মুন্নী সাহাকে ধন্যবাদ দিয়ে বলেন, মুন্নী আমাকে বংগ বাজার থেকে একটি গেবার্ডিনের হাফপেন্ট খরিদ করে উপহার দিয়েছে।

এরশাদ বলেন, আমি জানি না, খালেদা জিয়াকেও আমার মত একটি কাপড় রাতে ধুয়ে শুকাতে দিতে হয় কি না। যদি তা হয়ে থাকে, তাহলে বুঝতে হবে আল্লাহ বিচার করেছেন, তিনি জাতীয় পার্টির সাথে আছেন।

পল্লীবন্ধু বৃহত্তর জামায়াতে ইসলামীর নেতা মওদুদ আহমদের তীব্র সমালোচনা করে বলেন, মওদুদ ছিলেন আমার ভাইস প্রেসিডেন্ট। আমি ছিলাম এরশাদ, তিনি ছিলেন উপএরশাদ। তার পুটুতে এখনও বিএনপির লাঠির বাড়ির দাগ খুজলে পাওয়া যাবে। আপনারা বিশ্বাস না করলে মওদুদকে বলুন, সংবাদ সম্মেলনে এসে পুটুর কাপড় তুলে দেখাতে। এই মওদুদের দশ বছরের সাজা হয়েছিল দুর্নীতির দায়ে। আমি তাকে মাফ করে দিয়েছিলাম। আর আজ সেই মওদুদ আইন কানুন বিচার আচার দুর্নীতি নিয়ে বড় বড় কথা বলে। সে একটি অভিশাপ।

সরকারকে হার্ড লাইনে না যাওয়ার বেপারে মওদুদের হুমকি প্রসঙ্গে পল্লীবন্ধু এরশাদ বলেন, সেই দিন আর নাই জনাব মওদুদ। এখন বাজারে এসেছে বিজয় টেবলেট। যখন ইচ্ছা আমরা হার্ড লাইনে যেতে পারি। যতক্ষন খুশি হার্ড লাইনে থাকতে পারি।

May 20, 2012

কাজী ফারুকই আমার অনুপ্রেরনা: ইউনূস

বিশেষ মতিবেদক

কমান্ডো কায়দায় ঝটিকা অভিযান চালিয়ে প্রশিকা কার্যালয় দখল করে নেওয়ার কারনে কাজী ফারুককে অভিনন্দন জানিয়েছেন নোবেল বিজয়ী অর্থনীতিবীদ ডঃ মুহম্মদ ইউনূস।

ইউনূস এক সংবাদ সম্মেলনে বলেন, প্রশিকা কাজী ফারুকের নিজের হাতে গড়া প্রতিষ্ঠান। অথচ আদালত তাকে এই প্রতিষ্ঠান থেকে বিতাড়িত করেছিল। কিন্তু বীর কাজী ফারুক আজ আবার প্রশিকা দখল করে নিয়েছেন। তাকে অভিনন্দন।

ইউনূস আবেগঘন কণ্ঠে বলেন, গ্রামীন বেংক আমার নিজের হাতে গড়া প্রতিষ্ঠান। আদালত আমাকে এই প্রতিষ্ঠান থেকে বিতাড়িত করেছে।

ইউনূস আরও বলেন, কাজী ফারুকই আমার অনুপ্রেরনা।

নোবেল বিজয়ী ইউনূস এক প্রশ্নের উত্তরে জানান, হিলারি রডহাম ক্লিনটন তাকে কমান্ডো প্রশিক্ষনের বেপারে সহযোগীতা করবেন বলে আশ্বাস দিয়েছেন।

May 20, 2012

খালেদার নেতৃত্বে বিরোধী দলের গণ-অনশন আজ

নিজস্ব প্রতিবেদক

বৃহত্তর জামায়াতে ইসলামের বিএনপি শাখার মহিলা আমীর খালেদা জিয়ার নেতৃত্বে আজ রোববার ঢাকায় গণ-অনশন করছে ১৮ দলীয় জোট। ঢাকা মহানগর নাট্যমঞ্চে সকাল ১০টা থেকে বিকেল চারটা পর্যন্ত এই গণ-অনশন চলবে বলে বিএনপির নেতারা জানিয়েছেন।

বৃহত্তর জামায়াতে ইসলামের বিএনপি শাখার নেতারা জানান, ১৮ দলীয় জোটের শীর্ষ নেতাদের, বিশেষ করে যুদ্ধাপরাধ নামের ভুয়া অভিযোগে নূরানী নেতাদের বিরুদ্ধে করা সাজানো মামলা প্রত্যাহার, বিএনপিকে টপকে বিএনপির সাংগঠনিক সম্পাদক এম ইলিয়াস আলীকে গুম করার প্রতিবাদে এই গণ-অনশন কর্মসূচি পালনের সিদ্ধান্ত হয় ১৪ মে রাতে জোটের বৈঠকে।

গণ-অনশন নাট্যমঞ্চে কেন, এই প্রশ্নের জবাবে এক নেতা বলেন, আমরা তো রিয়েল অনশন করতেসি না। এইটা হবে অনশনের অভিনয়। আর রাজনীতি মানেই অভিনয়, বুঝেনই তো। তাই নাট্যমঞ্চই সবচে উপযুক্ত জায়গা। মাশাল্লাহ আমরা সঠিক প্লেস পাইসি।

গণ-অনশনের শেষে অংশগ্রহনকারিদের জন্য গণ-ভুরিভোজের আয়োজন করা হয়েছে। পুরনো ঢাকা থেকে সুস্বাদু বিরিয়ানির পেকেট ও দই-মিষ্টি সরবরাহ করা হবে বলে জানা গেছে।

অনশনের পরে ভুরিভোজ পরস্পরবিরোধি কিনা জানতে চাইলে বৃহত্তর জামায়াতে ইসলামের বিএনপি শাখার নেতারা সমস্বরে বলেন, এইটা কি কন! পরস্পরবিরোধি হবে ক্যান! আমরা গাড়ি চইড়া লং মার্চ করি নাই?

%d bloggers like this: